বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > নির্বাচনে জিতে যুদ্ধক্ষেত্রে মৃত্যু চাদের প্রেসিডেন্টের, সেনার মনোবল বাড়াতে গিয়ে হামলার শিকার
চাদের প্রেসিডেন্ট ইদ্রিস ডেবি ইটনো (ছবি সৌজন্যে রয়টার্স)
চাদের প্রেসিডেন্ট ইদ্রিস ডেবি ইটনো (ছবি সৌজন্যে রয়টার্স)

নির্বাচনে জিতে যুদ্ধক্ষেত্রে মৃত্যু চাদের প্রেসিডেন্টের, সেনার মনোবল বাড়াতে গিয়ে হামলার শিকার

  • নির্বাচনে জিতে যুদ্ধক্ষেত্রে মৃত্যু চাদের প্রেসিডেন্টের। সেনার মনোবল বাড়াতে গিয়ে বিদ্রোহীদের হামলার শিকার হন তিনি।

যুদ্ধক্ষেত্রে মৃত্যু মধ্য আফ্রিকার দেশ চাদের প্রেসিডেন্ট ইদ্রিস ডেবি ইটনোর। মঙ্গলবার দেশের সেনাকে উদ্বুদ্ধ করতে যুদ্ধক্ষেত্রে গিয়েছিলেন ইদ্রিস ডেবি। সেখানেই বিদ্রোহীদের হামলায় গুরুতর জখম হন তিনি। এর জেরে মৃত্যু হয় তাঁর। সেখানেই বিদ্রোহী সংগঠনের হামলায় প্রাণ হারান তিনি। উল্লেখ্য, চাদে বর্তমানে বিদ্রোহীদের সঙ্গে লড়াই চলছে সেদেশের সেনার।

এর আগে ১১ এপ্রিল সেদেশের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ফলাফল ঘোষণা হয় সোমবার। সেই নির্বাচনে ৬৮ বছরের ইদ্রিস ডেবি ইটনোর অনায়াসে জেতেন। ষষ্ঠ বারের জন্য দেশের প্রেসিডেন্ট হওয়ার একদিন পরই মৃত্যু হল তাঁর। এই পরিস্থিতিতে সামরিক পরিষদ আগামী দেড় বছর দেশটির শাসনভার সামলাবেন। বর্তমানে সেদেশের প্রেসিডেন্টের পদে বসতে চলেছেন ইদ্রিসের ৩৭ বছরের ছেলে জেনারেল মাহমাত ইদ্রিস ডেবি ইটনো। সেনাবাহিনী মঙ্গলবার জানিয়েছে, অন্তর্বর্তীকালীন সময় শেষ হওয়ার পর অবাধ ও গণতান্ত্রিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এর আগে প্রায় তিন দশকেরও বেশি সময় ধরে সেদেশের প্রেসিডেন্ট পদে ছিলেন ইদ্রিস ডেবি ইটনো। ১৯৯০ সালে এক সশস্ত্র অভ্যুত্থানের মধ্য দিয়ে ক্ষমতায় আসেন ইদ্রিস ডেবি। এরপর টানা ৬বার সেদেশের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন তিনি।

দেশটির সেনাবাহিনীর মুখপাত্র জেনারেল আজিম বেরমান্দোয়া আগৌনা জানান, যুদ্ধক্ষেত্রে দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করতে গিয়ে জীবন দিয়েছেন ইদ্রিস ডেবি। সেনাবাহিনী জানিয়েছে, গত ১১ এপ্রিল নির্বাচনের দিন দেশের উত্তর দিকে একটি বড় আক্রমণ শুরু করেছিল এমন বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের সময় ডেবি তার সেনাবাহিনীকে কমান্ড করছিলেন। সেই সময় জখম হন তিনি। সেই জখমের জেরেই প্রাণ হারান ইদ্রিস। 

 

বন্ধ করুন