বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > স্বামীর অফিসে গিয়ে তাঁর সঙ্গে স্ত্রীর দুর্ব্যবহার করা নিষ্ঠুরতা! ডিভোর্সের মামলায় পর্যবেক্ষণ ছত্তিশগড় হাইকোর্টের

স্বামীর অফিসে গিয়ে তাঁর সঙ্গে স্ত্রীর দুর্ব্যবহার করা নিষ্ঠুরতা! ডিভোর্সের মামলায় পর্যবেক্ষণ ছত্তিশগড় হাইকোর্টের

ছত্তিশগড় আদালতের পর্যবেক্ষণে উঠে এল গুরুত্বপূরণ দিক।

রাইপুর কোর্টের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে ছত্তিশগড়ের হাইকোর্টে আবেদন করেন ডিভোর্সের মামলার একপ্রান্তে থাকা মহিলা। এই মামলায় রয়েছে বেশ কয়েকটি পরত। প্রসঙ্গত, মহিলার ক্ষোভ রয়েছে তাঁর স্বামীর বিরুদ্ধে। মামলায় উঠে এসেছে এক মন্ত্রীর কাছ থেকে বিশেষ উপকার নেওয়ার অভিযোগ অবৈধভাবে।

স্বামীর অফিসে গিয়ে তাঁর সঙ্গে ঘৃণ্য ভাষায় কথা বলে দুর্ব্যাবহার করা একটি নিষ্ঠুরতার নামান্তর স্ত্রীর দিক থেকে। এক ডিভোর্সের মামলায় ছত্তিশগড় হাইকোর্ট এই রায় দিয়েছে।  বিচারপতি গৌতম ভাদুরি ও বাচিরপতি রাধাকিষাণ আগারওয়ালের বেঞ্চ এই মামলায় রাইপুর ফ্যামালি কোর্টের রায়কেই মান্যতা দিয়েছে।

এর আগে রাইপুর কোর্টের নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে ছত্তিশগড়ের হাইকোর্টে আবেদন করেন ডিভোর্সের মামলার একপ্রান্তে থাকা মহিলা। এই মামলায় রয়েছে বেশ কয়েকটি পরত। প্রসঙ্গত, মহিলার ক্ষোভ রয়েছে তাঁর স্বামীর বিরুদ্ধে। মামলায় উঠে এসেছে এক মন্ত্রীর কাছ থেকে বিশেষ উপকার নেওয়ার অভিযোগ অবৈধভাবে। এই উপকারটি সম্পর্কে উঠে আসছে এক পরকীয়া ঘটনা। জানা যাচ্ছে, অভিযোগকারী মহিলার স্বামী অন্য এক মহিলার সঙ্গে সম্পর্কে লিপ্ত হন। আর সেই কারণেই তিনি বদলি চান চাকরি ক্ষেত্রে, উল্লেখ্য ওই ব্যক্তি একজন সরকারি অফিসার। আদালতের পর্যবেক্ষণ বলছে, এই সমস্ত অভিযোগ, কোনও ভিত্তি ছাড়া তোলাও স্ত্রীর দিক থেকে একটি নিষ্ঠুরতা। Viral Video: মুম্বইয়ে বিখ্যাত 'চিন্তামণি' মূর্তির উন্মোচনে উৎসবের আবহ

উল্লেখ্য, ধামতারি জেলার ৩২ বছরের এক সরকারি অফিসার এক ৩৪ বছর বয়সী স্বামীহারা বৈধব্যে থাকা মহিলাকে বিয়ে করেন। বিয়ের কিছুদিন পরই ডিভোর্সের মামলা দায়ের করেন তিনি। ব্যক্তির অভিযোগ, তাঁর মা বাবার সঙ্গে তাঁকে দেখা করতে দিচ্ছেন না তাঁর স্ত্রী। মামলা রাইপুর আদালতে গেলে সমস্ত তথ্য প্রমাণ অনুযায়ী ডিভোর্সের আবেদনে সায় দেয় আদালত। এরপরই সেই রায়ের বিরুদ্ধে গিয়ে ছত্তিশগড় আদালতে মমালা দায়ের করেন ব্যক্তি। 

 

 

 

 

বন্ধ করুন