বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > চন্দ্রগ্রহণের সময় কেন বিরিয়ানি খাচ্ছ? তুমুল মারপিট ওড়িশায়, গোবরও ছোঁড়া হল

চন্দ্রগ্রহণের সময় কেন বিরিয়ানি খাচ্ছ? তুমুল মারপিট ওড়িশায়, গোবরও ছোঁড়া হল

চন্দ্রগ্রহণ(ANI Photo) (Pitamber Newar)

গণেশ দাস নামে এক যুক্তিবাদী বলেন, আমি রাজ্য সরকার ও পুলিশকে দোষ দেব। পুলিশ জানত এলাকায় টেনশন হবে। তবুও ব্যবস্থা নেয়নি।

ওড়িশার বেহারামপুর শহরে চন্দ্রগ্রহণের সময় খাবার খাওয়া নিয়ে তুমুল সংঘর্ষ। ভুবনেশ্বরের লোহিয়া আকাদেমি চত্বরে দুই গোষ্ঠীর মধ্যে তুমুল সংঘর্ষ বেঁধে যায়। আসলে যুক্তিবাদী বলে দাবি করা কয়েকজন ওখানে একেবারে এলাহি খাওয়া দাওয়ার আয়োজন করেছিলেন। গ্রহণের সময়তেই এই খাওয়ার আয়োজন করা হয়। এনিয়ে আপত্তি তোলেন রক্ষণশীলরা। সেই থেকে প্রথমে বচসা। এরপর দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বেঁধে যায়। পুলিশ গিয়ে কোনওরকমে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

একেবারে বিরিয়ানি খাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছিল। সেই সময় রক্ষণশীল গ্রুপের যুবকরা ঢুকে লণ্ডভণ্ড করে দেন। মারপিটও বেঁধে যায়। পরে পুলিশ এসে দুপক্ষ মিলিয়ে ১২জনকে আটক করে।

এমনকী রক্ষণশীলদের দল অপর একটি জায়গায় গোবরও ছুঁড়তে শুরু করে। কারণ সেখানে আমিষ খাবার খাওয়া হচ্ছিল। এদিকে সেখানে পোস্টার দেওয়া হয়েছিল সূর্য বা চন্দ্র গ্রহণের সময় খেলে কোনও ক্ষতি হয় না। সেই পোস্টারও ছিঁড়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। পুলিশ লাঠি চার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

গণেশ দাস নামে এক যুক্তিবাদী বলেন, আমি রাজ্য সরকার ও পুলিশকে দোষ দেব। পুলিশ জানত এলাকায় টেনশন হবে। তবুও ব্যবস্থা নেয়নি।

স্থানীয় সিপিআই নেতা নারায়ণ রেড্ডির দাবি, যুক্তিবাদী তিনজন পাথরের আঘাতে জখম হয়েছেন।

 

বন্ধ করুন