৯০ টন সার্জিক্যাল গ্লাভস সার্বিয়ায় পাঠিয়েছে কেরালার এক বেসরকারি সংস্থা।
৯০ টন সার্জিক্যাল গ্লাভস সার্বিয়ায় পাঠিয়েছে কেরালার এক বেসরকারি সংস্থা।

করোনা সংক্রমণের মাঝে সার্বিয়ায় ৯০ টন গ্লাভস রফতানি, কেন্দ্রকে তোপ কংগ্রেসের

সার্বিয়ায় পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ ইকুইপমেন্ট (PPE) পাঠানোর সিদ্ধান্তে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সমালোচনায় সরব হল কংগ্রেস।

Covid-19 সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে শামিল স্বাস্থ্যকর্মীদের বঞ্চিত করে সার্বিয়ায় পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ ইকুইপমেন্ট (PPE) পাঠানোর সিদ্ধান্তে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সমালোচনায় সরব হল কংগ্রেস।

সম্প্রতি চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তায় ব্যবহৃত ৯০ টন PPE সার্বিয়ায় পাঠিয়েছে কেরালার এক বেসরকারি সংস্থা। কংগ্রেসের অভিযোগ, দেশে করোনা সংক্রমণের বিরুদ্ধে সংগ্রামরত চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা ব্যক্তিগত নিরাপত্তার জন্য প্রয়োজনীয় এই সরঞ্জাম চেয়েও পাচ্ছেন না।

বুধবার কংগ্রেস মুখপাত্র মণীশ তিওয়ারি টুইট করেন, ‘এসব কী হচ্ছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী? যখন আগুয়ান ভারতীয় স্বাস্থ্যকর্মীরা নিরাপত্তাদায়ী সরঞ্জামের জন্য হাহাকার করছেন, তখন আমরা সার্বিয়াকে ৯০ টন প্রোটেক্টিভ মেডিক্যাল ইকুইপমেন্ট পাঠাচ্ছি? এ তো অপরাধ।’

সূত্রে খবর, সার্বিয়ায় পাঠানো কেরালার এক বেসরকারি সংস্থার তৈরি ৩.৫ টন সার্জিক্যাল গ্লাভস নিষিদ্ধ রফতানিযোগ্য পণ্যের তালিকায় ছিল না।

এ দিন কেন্দ্রের বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকারকে এই নিয়ে বিঁধেছেন আর এক কংগ্রেস মুখপাত্র জয়বীর শেরগিল। ভিডিয়ো কনফারেন্সে তাঁর দাবি, যে সময় দেশের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা উন্নত সরঞ্জামের জন্য কাঁদছেন, সেই সময় বিদেশে মেডিক্যাল সরঞ্জা্ম বিক্রি করছে কেন্দ্রীয় সরকার।

ঘটনার সূত্রপাত গত ২৯ মার্চ রাষ্ট্রপুঞ্জের অধীনস্থ সার্বিয়ায় অবস্থিত UNDP-এর তরফে টুইট করে জানানো হয় যে, বেলগ্রেডে ভারত থেকে আমদানি করা ৯০ টন মেডিক্যাল সুরক্ষাজনিত পণ্য নিয়ে পৌঁছেছে একটি বোয়িং ৭৪৭ বিমান।

গত ২৫ ফেব্রুয়ারি ও ১৯ মার্চ কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে নোটিশ জারি করে মাস্ক, ভেন্টিলেটর এবং মিাস্ক তৈরি করার কাঁচামাল রফতানির উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। তবে তাতে ছাড় দেওয়া হয় গ্লাভস, নন-উওভেন জুতোর কভার ও গ্যাস মাস্কের সঙ্গে কিছু রাসায়নিকও।

বন্ধ করুন