সুরাপ্রেমীদের জন্য সুখবর (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)
সুরাপ্রেমীদের জন্য সুখবর (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

COVID-19 Updates: অসম-মেঘালয়ে খুলল মদের দোকান, শুরুতেই পড়ল লাইন

  • লকডাউনের শেষভাগে সুরাপ্রেমীদের জন্য সুখবর।

লকডাউনের মধ্যেই সোমবার থেকে অসম ও মেঘালয়ে খুলল মদের দোকান। তবে নির্দিষ্ট সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে বিধিনিষেধ মেনে চলারও নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন।

আরও পড়ুন : তিনটি জোনে ভাগ করা হতে পারে দেশকে, গ্রিন জোনে ১৯টি শিল্পে নিষেধাজ্ঞা শিথিলের প্রস্তাব

রবিবার একটি নির্দেশিকা জারি করে অসমের আবগারি দফতরের তরফে জানানো হয়, সোমবার থেকে মদের দোকান, পাইকারি গোডাউন, বোতল প্ল্যান্ট খোলা থাকবে। যে দিনগুলিতে অনুমতি দেওয়া হবে, সেই দিনগুলি সকাল ১০টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত দোকান খোলা রাখা যাবে। পাশাপাশি, স্বাস্থ্য দফতরের নির্দিষ্ট নির্দেশিকা মেনে চলতে হবে। ক্রেতাদের মধ্যে কমপক্ষে এক মিটার দূরত্ব থাকতে হবে। দোকানে ন্যূনতম কর্মী থাকবে। বোতল ও টাকা-কয়েনে হাত দেওয়ার পর ক্রেতা ও কর্মীদের হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্য়বহার করতে হবে। ৫০ শতাংশ কর্মী নিয়ে পাইকারি গোডাউন ও বোতল প্ল্যান্ট চালাতে হবে। কর্মীদের কারখানা চত্বরেই বা আশপাশে থাকার ব্যবস্থা করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন : COVID-19 Updates: ডায়াবিটিস সত্ত্বেও সংকল্প-ইচ্ছা শক্তিতে করোনা মুক্তি:কালিম্পঙে মৃত মহিলার ভাশুর

নাম গোপন রাখার শর্তে অসমের এক উচ্চপদস্থ আধিকারিক বলেন, 'লকডাউন শুরুর পর থেকে বেআইনি দেশীয় মদ তৈরি ও বিক্রি হু হু করে বেড়েছে। অনুমোদিত দোকান খুলতে দেওয়া না হলে বিষ মদ খেষে মানুষের মৃত্যুর আশঙ্কা রয়েছে।'

আরও পড়ুন : রাজ্যে একদিনে করোনায় আক্রান্ত ১৮, রোগীর সংখ্যা দেড়শো ছাড়াল

রবিবার সকালে মেঘালয়েও একই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। সোমবার থেকে আগামী শুক্রবার পর্যন্ত সেখানে সকাল ন'টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মদের দোকান খোলা থাকবে। দোকানগুলিতে সামাজিক দূরত্বের বিধি মেনে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি যে এলাকায় মদের দোকান নেই, সেখানে হোম ডেলিভারির ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। তা কীভাবে হবে, সেই সংক্রান্ত বিষয় অবশ্য স্থানীয় ডেপুটি কমিশনারের সঙ্গে আলোচনা করতে হবে।

বন্ধ করুন