বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > উহানের ল্যাবে চলত 'সামরিক গবেষণা', করোনার উত্স নিয়ে জল্পনা বাড়িয়ে দাবি পম্পেওর
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক্তন সেক্রেটারি অফ স্টেট মাইক পম্পেও (ফাইল ছবি : ব্লুমবার্গ)
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক্তন সেক্রেটারি অফ স্টেট মাইক পম্পেও (ফাইল ছবি : ব্লুমবার্গ)

উহানের ল্যাবে চলত 'সামরিক গবেষণা', করোনার উত্স নিয়ে জল্পনা বাড়িয়ে দাবি পম্পেওর

  • চিনের উহান ল্যাব নিয়ে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক্তন সেক্রেটারি অফ স্টেট মাইক পম্পেও।

এবার চিনের উহান ল্যাব নিয়ে চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করলেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক্তন সেক্রেটারি অফ স্টেট মাইক পম্পেও। এদিন তিনি বলেন, 'উহানের ইনস্টিটিউট অফ ভাইরলজিতে অসামরিক বৈজ্ঞানিক গবেষণার পাশাপাশি চলত সামরিক গবেষণা।' পম্পেওর এহেন মন্তব্যে ফের একবার করোনার উত্স সংক্রান্ত জল্পনা বেড়েছে।

এদিন পম্পেও বলেন, 'আমি এটা নিশ্চিত হয়ে বলতে পারি : আমরা জানি যে পিপলস লিবারেশন আর্মি সংক্রান্ত গবেষণা চলত উহানের এই ল্যাবে। চিন সেই গবেষণা সংক্রান্ত তথ্য দিতে অস্বীকার করে। সেখানে ঢুকতে বাধা দেওয়া হয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকেও।'

উল্লেখ্য, গত বুধবার ইউএস ইন্টেলিজেন্স এজেন্সিকে করোনা ভাইরাসের উৎস অনুসন্ধানের নির্দেশ দেন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। করোনা ভাইরাস চিনের কোনও পশু থেকে ছড়িয়েছে নাকি ল্যাবরেটরির দুর্ঘটনা থেকে তা তদন্ত করে সেই রিপোর্ট ৩ মাসের মধ্যে তাঁকে জানানের নির্দেশ দিয়েছেন।

বাইডেনের কথায়, এজেন্সিগুলি এই মুহূর্তে কোভিড ছড়িয়ে পড়ার উৎস নিয়ে দুই মতে বিভক্ত। কারোর ধারণা এটি ছড়িয়েছে চিনের কোনও পশুর থেকে। আবার কারোর মতে এটি চিনে ঘটা যাওয়া ল্যাবরেটরি দুর্ঘটনার কারণে ছড়িয়েছে। গত এক বছরে এই ভাইরাস বিশ্বের ৩৪ লক্ষের বেশি মানুষের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।

বাইডেনের এই নির্দেশের বিতর্ক আরও বাড়ার আশঙ্কা। তবে চিন দাবি করেছে এই মহামারীর জন্য তারা কোনও ভাবেই দায়ি নয়। আর আমেরিকার রাজনৈতিক কারণে,বেজিংকে আক্রমণ করার উদ্দেশ্য এই দাবি করে এসেছে।

বন্ধ করুন