বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Covid-19 Vaccine Updates: নয়া বছরের শুরুতেই সুখবর, প্রথম করোনা টিকা পেল ভারত
নয়া বছরের শুরুতেই আশার আলো, ভারতে জরুরি অনুমোদন অক্সফোর্ডের করোনা টিকার। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

Covid-19 Vaccine Updates: নয়া বছরের শুরুতেই সুখবর, প্রথম করোনা টিকা পেল ভারত

  • নয়া বছরের পয়লা দিনেই মিলল বড়সড় সুখবর

নয়া বছরের পয়লা দিনেই মিলল বড়সড় সুখবর। প্রথম করোনাভাইরাস টিকা পেল ভারত।জরুরি ভিত্তিতে ব্যবহারের জন্য অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের করোনাভাইরাস টিকা ‘কোভিশিল্ড’-কে অনুমোদন দিল সেন্ট্রাল ড্রাগস স্ট্যান্ডার্ড কন্ট্রোল অর্গানাইজেশনের (সিডিএসসিও) বিশেষজ্ঞ কমিটি। সূত্র উল্লেখ করে একথা জানিয়েছে ‘হিন্দুস্তান টাইমস’-এর ‘মিন্ট’। যদিও কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়েছে, এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। বরং বিশেষজ্ঞ কমিটির এখনও বৈঠক চলছে বলে জানানো হয়েছে

ওই সূত্র জানিয়েছেন, শীঘ্রই আনুষ্ঠানিকভাবে সেই টিকায় অনুমোদন দেবেন ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া (ডিসিজিআই) ভি জে সোমানি। সাধারণত বিশেষজ্ঞ কমিটির সুপারিশের পরই অনুমোদন বা জরুরি ভিত্তিতে ব্যবহারের প্রস্তাবে ছাড়পত্র দেন ডিসিজিআই। তবে কী কী শর্ত আরোপ করা হয়েছে, তা এখনও জানতে পারেনি ‘মিন্ট’। আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পর সেই বিষয়ে বিস্তারিত জানা যাবে।

তবে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, টিকা অনুমোদনের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন ডিসিজিআই।একটি টুইটবার্তায় বলা হয়েছে, ‘বিশেষজ্ঞ কমিটির বৈঠক এখনও চলছে। ডিসিজিআইকে উপযুক্ত সুপারিশ করবে কমিটি। চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন ডিসিজিআই।’

ব্রিটিশ-সুইডিশ ওষুধ প্রস্তুতকারী সংস্থা অ্যাস্ট্রোজেনেকার সঙ্গে যৌথভাবে সেই টিকা তৈরি করেছে অক্সফোর্ড। ভারতে যে টিকার উৎপাদন করছে সেরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়া (এসআইআই)। নিম্ন ও মধ্য আয়বিশিষ্ট দেশের জন্য ১০০ কোটি করোনা টিকার ডোজ তৈরি করার চুক্তি করেছে ভারতীয় সংস্থা। 

ড্রাগ কন্ট্রোলার জেনারেল অফ ইন্ডিয়া (ডিসিজিআই) ভি জে সোমানির নেতৃত্বে চলতি সপ্তাহে দ্বিতীয়বার বৈঠকে বসে বিশেষজ্ঞ কমিটি। সেখানে ‘কোভিশিল্ড’-এর পাশাপাশি ফাইজার-এনবায়োটেক এবং ভারত বায়োটেকের সম্ভাব্য টিকারও পর্যালোচনা করার কথা ছিল। তবে সংবাদসংস্থা জানিয়েছেন, সেই বৈঠকের এক প্রতিনিধি কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি।

চলতি সপ্তাহের বুধবারই ব্রিটেনে জরুরি ভিত্তিতে অক্সফোর্ডের টিকা ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছেন সেদেশের মেডিসিন অ্যান্ড হেলথ প্রোডাক্টস রেগুলেটরি এজেন্সি (এমএইচআরএ)। ব্রিটিশ-সুইডিশ সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, চার থেকে ১২ সপ্তাহের ব্যবধানে ১৮ বছর বা বেশি বয়সের মানুষের শরীরে দুটি পুরো ডোজ দিতে হবে।

বন্ধ করুন