বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > শক্তি হারিয়ে নিম্নচাপে পরিবর্তিত বুরেভি, দুর্যোগের আশঙ্কায় বন্ধ বিমানবন্দর-স্কুল
গভীর নিম্নচাপের প্রভাবে মেঘে ঢেকেছে চেন্নাইয়ের আকাশ। শুক্রবার মেরিনা সৈকতের ছবি, এএনআই-এর সৌজন্যে।
গভীর নিম্নচাপের প্রভাবে মেঘে ঢেকেছে চেন্নাইয়ের আকাশ। শুক্রবার মেরিনা সৈকতের ছবি, এএনআই-এর সৌজন্যে।

শক্তি হারিয়ে নিম্নচাপে পরিবর্তিত বুরেভি, দুর্যোগের আশঙ্কায় বন্ধ বিমানবন্দর-স্কুল

  • শেষ পর্যন্ত শক্তি হারিয়ে নিছক নিম্নচাপে রূপান্তরিত হল ঘূর্ণিঝড় বুরেভি।

আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস জনমানসে আতঙ্ক সৃষ্টি করলেও শেষ পর্যন্ত শক্তি হারিয়ে নিছক নিম্নচাপে রূপান্তরিত হল ঘূর্ণিঝড় বুরেভি। 

পূর্বাভাস অনুযায়ী, বুধবার রাতে তামিল নাডু উপকূলে আছড়ে পড়ার কথা ছিল ঘর্ণিঝড়ের, যার জেরে তামিল নাডু ও কেরালার দক্ষিণাংশে জারি হয়েছিল লাল সতর্কতা। 

আবহাওয়া দফতর আরও জানিয়েছিল, ঘূর্ণিঝড়ের জেরে দক্ষিণ তামিল নাডুর বেশ কিছু জায়গায় ভারী ও অতিভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। প্রবল বর্ষণের পূর্বাভাস ছিল কেরালার প্রান্তিক অঞ্চল ও মাহেতেও। সেই সঙ্গে আগামী ২৪ ঘণ্টায় প্রবল বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা দেখা গিয়েছিল তামিল নাডু, পুদুচেরি ও কারাইকালে। অন্ধ্র প্রদেশ ও লাক্ষাদ্বীপে শুক্রবার ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনার কথাও জানায় আবহাওয়া দফতর।

ঘূর্ণিঝড়ের কথা মাথায় রেখে তামিল নাডুও কেরালার মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৃহস্পতিবার আলোচনায় বসেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তিনি ওই দুই রাজ্যে দুর্যোগকালীন সাহায্যের আশ্বাসও দেন। এর আগে গত বুধবার দুই মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে ঘূর্ণিঝড় পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনিও কেন্দ্রীয় সহায়তার প্রতিশ্রুতি দেন। 

দুর্যোগের আগাম আশঙ্কায় শুক্রবার রাজ্যের পাঁচ জেলায় ছুটি ঘোষণা করে কেরালা সরকার, জারি করা হয় চূড়ান্ত সতর্কতা। সেই সঙ্গে গণছুটি ঘোষণা করা হয় তিরুবনন্তপুরম, পাঠনমথিট্টা, আলাপুঝা ও ইদুক্কিতে। 

ঘূর্ণিঝড়ের সম্ভাবনায় সতর্ক করা হয় দুর্যোগ মোকাবিলা দফতর-সহ আপৎকালীন পরিষেবা প্রদানকারী দফতরগুলিকে। তবে বলা হয়, জরুরি লও নির্বাচন কেন্দ্রিকপরিষেবা যথাযথ চালু থাকবে। ৪ ডিসেম্বর সকাল ১০টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত বন্ধ রাখা তিরুবনন্তপুরম বিমানবন্দরের যাবতীয় পরিষেবা। কেরালায় খুলে দেওয়া হয় ২,০০০ ত্রাণ শিবির। 

ভারতীয় সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী ও বায়ুসেনার সাহায্য চাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে কেরালায় মৎস্যজীবীদের গভীর সমুদ্রে অভিযানের উপরে আরোপ করা হয় নিষেধাজ্ঞা। 

তিরুবনন্তপুরমের মতোই ঘূর্ণিঝড়ের আশঙ্কায় এ দিন দুপুর ১২টা পর্যন্ত সাময়িক স্থগিত রাখা হয়েছে মাদুরাই বিমানবন্দরের পরিষেবা। অন্য দিকে, তুতিকোরিন বিমানবন্দর বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন। পুদুচেরিতে প্রবল বর্ষণের আশঙ্কায় বন্ধ রাখা হয়েছে সমস্ত সরকারি ও বেসরকারি স্কুল। 

বন্ধ করুন