বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > প্রতিরক্ষাক্ষেত্রে কর্পোরেট ছোঁয়া, বিতর্ককে উড়িয়ে লাভের মুখ দেখল সংস্থাগুলি
সাতটি সংস্থায় এখন প্রতিরক্ষাসরঞ্জাম তৈরি হয়। ফাইল ছবি. (ANI) (HT_PRINT)
সাতটি সংস্থায় এখন প্রতিরক্ষাসরঞ্জাম তৈরি হয়। ফাইল ছবি. (ANI) (HT_PRINT)

প্রতিরক্ষাক্ষেত্রে কর্পোরেট ছোঁয়া, বিতর্ককে উড়িয়ে লাভের মুখ দেখল সংস্থাগুলি

  • অর্ডন্যান্স ফ্যাক্টরি বোর্ডকে কার্যত সাতটি প্রতিষ্ঠানে ভেঙে দেওয়া হয়েছিল। তারাই প্রতিরক্ষাক্ষেত্রে সরঞ্জাম তৈরি করে। এনিয়ে নানা বিতর্ক হলেও আখেরে লাভের মুখ দেখেছে সংস্থাগুলি।

রাহুল সিং

পূর্বতন অর্ডন্যান্স ফ্যাক্টরি বোর্ডের বাইরে থেকেও গত ৬ মাসে লাভের মুখ দেখছে ডিফেন্স কোম্পানিগুলি। প্রতিরক্ষাক্ষেত্রতেও কর্পোরেটের ছোঁয়া লাগছে বলে সম্প্রতি নানা বিতর্ক দানা বেঁধেছিল। তবে এবার প্রতিরক্ষামন্ত্রকের তথ্য অনুসারে দেখা যাচ্ছে সংস্কারের ফল একেবারে বৃথা যায়নি।

এদিকে ২০২১ সালের ১৫ই অক্টোবর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সাতটি নতুন ফার্মের সূচণার কথা ঘোষণা করেছিলেন। সেই সঙ্গে প্রতিরক্ষাক্ষেত্রে আত্মনির্ভরতার কথা ঘোষণা করেছিলেন তিনি। মূলত প্রতিরক্ষাক্ষেত্রে বিদেশ থেকে সমর সরঞ্জামের আমদানি কমিয়ে যতটা সম্ভব দেশের কোম্পানিগুলির উপর ভরসা করার কথা জানানো হয়েছিল।

এদিকে শুক্রবার প্রতিরক্ষামন্ত্রকের তরফে একটি বিবৃতি প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানে কোম্পানিগুলির লাভের একটা খতিয়ান হাজির করা হয়েছে। সেই খতিয়ানে দেখা যাচ্ছে, India Optel Limited (৬০.৪৪ কোটি, 60.44 crore), Armoured Vehicles Nigam Limited (৩৩.০৯ কোটি, 33.09 crore), Munitions India Limited(২৮ কোটি, 28 Crore), Troop Comforts Limited (২৬ কোটি, 26 Crore), Gliders India Limited (১৩.২৬ কোটি, 13,26 crore) , Advanced Weapons and Equipment India Limited( ৪.৮৪ কোটি, 4.84 crore) লাভ করেছে।

সমর বিশেষজ্ঞ প্রাক্তন আর্মি ডেপুটি চিফ লেফটেনান্ট জেনারেল সুব্রত সাহা                    ( অবসরপ্রাপ্ত) বলেন, এই কোম্পানিগুলির ম্যানেজমেন্টও কর্মদক্ষতা বৃদ্ধির জন্য উদ্যোগী হয়েছিলেন। কর্পোরেটাইজেশনের আগে বোর্ড সরাসরি তিন বাহিনীর কাছ থেকে সমর সরঞ্জামের অর্ডার নিত। তবে বর্তমান পরিস্থিতিতে দক্ষতা বৃদ্ধি করার ব্যাপারেও কোম্পানিগুলির মধ্যে প্রতিযোগিতা চলছে। 

বন্ধ করুন