এই সেই হোর্ডিং (ছবি সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
এই সেই হোর্ডিং (ছবি সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

'পরাজয়ে আমরা নিরাশ হই না', সকালেই দিল্লি BJP অফিসের বাইরে পড়ল হোর্ডিং

বিজেপির এই হোর্ডিংয়ের ছবি ছড়িয়ে পড়ার পর রাজনৈতিক মহলের টিপ্পনী, এত সহজেই হার স্বীকার করে নিল?

তাহলে কি প্রাথমিক ট্রেন্ড সামনে আসতেই হার স্বীকার করে নিল বিজেপি? ভোটগণনার প্রাথমিক আভাসের পর দিল্লিতে বিজেপি অফিসের বাইরের এরকম একটি হোর্ডিং পড়ায় সেই প্রশ্নটাই ঘুরপাক খাচ্ছে রাজনৈতিক মহলে।

দিল্লি বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফলের লাইভ ব্লগ

এবারের দিল্লির বিধানসভা নির্বাচন পুরোপুরি প্রেস্টিজ ফাইট। লড়াইটা ছিল অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সঙ্গে নরেন্দ্র মোদী-অমিত শাহ জুটির। লোকসভা নির্বাচনে যে জুটির ক্যারিশমা অটুট থাকলেও বিধানসভা ভোট আসলেই তা ক্রমশ ফিকে হয়ে যাচ্ছে। বিজেপি সভাপতি হিসেবে গত এক বছরে পাঁচটি রাজ্যের হারের তেতো স্বাদও পেয়েছেন অমিত। সভাপতির পদ ছেড়ে দিলেও দিল্লির যুদ্ধ ছিল অমিতের কাছে মর্যাদার লড়াই। তাই পূর্ণশক্তি নিয়ে ঝাঁপিয়েছিলেন তিনি। একাধিক প্রচার সভা করেছেন খোদ মোদীও।

কিন্তু তারপরও বুথফেরত সমীক্ষায় নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছিল আপ। যদিও তাতে পাত্তা দেয়নি বিজেপি। বরং তারা এতদিন দাবি করে আসছিল, ফলাফলের দিন পাশা পালটে যাবে।

আরও পড়ুন : শাহিন বাগ খ্যাত ওখলা বিধানসভা কেন্দ্রে এগিয়ে আপ

যদিও ভোটগণনার সকালেই প্রাথমিক টেন্ড্র সামনে আসতে দেখা যায়, একক সংখ্যাগরিষ্ঠতার পথে আপ। ২০টির মতো আসনে বিজেপি এগিয়ে থাকলেও আপের ত্রিসীমানায় নেই বিজেপি। এমনকী ৩০ টি আসন জিতলেও আপের নৈতিক পরাজয় হবে বলে যে প্রচার চালানো হচ্ছিল, তাতেও বড়সড় ধাক্কা লেগেছে।

আরও পড়ুন : গণনা শুরুর ৪৬ মিনিটের মধ্যে হার স্বীকার কংগ্রেস প্রার্থীর

তারমধ্যেই দিল্লিতে বিজেপির অফিসের বাইরে একটি হোর্ডিং দেখা যায়, 'জয়ে আমরা অহংকারী হই না। পরাজয়ে আমরা নিরাশ হই না।' বিজেপির এই হোর্ডিংয়ের ছবি ছড়িয়ে পড়ার পর রাজনৈতিক মহলের টিপ্পনী, এত সহজেই হার স্বীকার করে নিল বিজেপি নাকি আগে থেকেই দেওয়াল লিখনটা পড়েই হোর্ডিং ছাপিয়ে রেখেছিল গেরুয়া শিবির?

আরও পড়ুন : Delhi Assembly Election Results: ভরাডুবি কংগ্রেসের, EVM অজুহাত দিগ্বিজয়ের

বন্ধ করুন