বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > দীপাবলিতে বিনিয়োগ করবেন? এই ১২ সংস্থার শেয়ারই আপনার ভাগ্য খুলে দিতে পারে!
প্রতীকী ছবি : এএনআই (ANI)
প্রতীকী ছবি : এএনআই (ANI)

দীপাবলিতে বিনিয়োগ করবেন? এই ১২ সংস্থার শেয়ারই আপনার ভাগ্য খুলে দিতে পারে!

এই তালিকায় আছে, প্রিন্স পাইপস, গ্রিনপ্যানেল ইন্ডাস্ট্রিজ, অ্যাপোলো পাইপস, অ্যাক্রিসিল, ডালমিয়া ভারত, ইন্ডিয়ামার্ট, পিএনসি ইনফ্রা, পলিক্যাব, আইসিআইসিআই ব্যাঙ্ক, গ্ল্যান্ড ফার্মা, এসবিআই কার্ডস এবং ক্রিসিল।

দীপাবলি, ধনতেরাসে শুধুমাত্র সোনা-রূপায় বিনিয়োগের দিন শেষ। এখন যুগ শেয়ার বাজারে বিনিয়োগের। আর সেই জন্যই ডোমেস্টিক ব্রোকারেজ এবং গবেষণা সংস্থা 'ইয়েস সিকিউরিটিজ' দীপাবলির সেরা ১২টি শেয়ারের সাজেশান প্রকাশ করেছে। অল্প মেয়াদে, ১২ মাসের জন্য এই শেয়ারগুলি কিনে দেখা যেতে পারে। এই তালিকায় আছে, প্রিন্স পাইপস, গ্রিনপ্যানেল ইন্ডাস্ট্রিজ, অ্যাপোলো পাইপস, অ্যাক্রিসিল, ডালমিয়া ভারত, ইন্ডিয়ামার্ট, পিএনসি ইনফ্রা, পলিক্যাব, আইসিআইসিআই ব্যাঙ্ক, গ্ল্যান্ড ফার্মা, এসবিআই কার্ডস এবং ক্রিসিল।

দীপাবলির জন্য ইয়েস সিকিউরিটিজের বাছাই করা ১২টি সেরা শেয়ার-

১. প্রিন্স পাইপস(Prince Pipes): ব্রোকারেজ সংস্থার মতে, এই কোম্পানির শক্তিশালী ব্র্যান্ড ইমেজ এবং কৌশলী টাই-আপ তাদের মার্কেট-শেয়ার প্রসারিত করতে পারে। তার উপর এই শিল্পক্ষেত্র ধীরে ধীরে অসংগঠিত থেকে সংগঠিত বিভাগে রূপান্তরিত হচ্ছে। ফলে এটি আগামিদিনে সংস্থার বৃদ্ধিতে সাহায্য করতে পারে। এটির টার্গেট প্রাইস রাখা হয়েছে ১,০৯১ টাকা। বর্তমানে* দাম ৭৫৪.৩৫ টাকা।

২. গ্রীনপ্যানেল ইন্ডাস্ট্রিজ(Greenpanel Industries): ৪৭০ টাকা টার্গেট রাখা হয়েছে। বর্তমানে* দাম ৩৮৯.৯০ টাকা। সংস্থাটি তাদের মোট ঋণের পরিমাণ কমিয়ে ব্যালেন্স শীটকে শক্তিশালী করছে।

৩. অ্যাপোলো পাইপস(Apollo Pipes): ইয়েস সিকিউরিটিজের বিশ্বাস, যেহেতু অ্যাপোলো পাইপস একটি শীর্ষস্থানীয় সর্বভারতীয় বিক্রেতা হওয়ার পথে এগোচ্ছে, সেহেতু এটির দাম সেভাবেই বাড়তে পারে। স্টক প্রতি টার্গেট মূল্য ২,২৫০ টাকা রাখা হয়েছে। বর্তমানে* দাম ১,৭২০ টাকা।

৪. অ্যাক্রিসিল(Acrysil): বিশ্বজুড়ে কোয়ার্টজ সিঙ্কের চাহিদা বাড়ছে। আর সেই বাজারেই সরবরাহ বাড়াচ্ছে এই সংস্থা। ফলে আগামিদিনে দ্রুত বাড়তে পারে শেয়ারদর। টার্গেট দর রাখা হয়েছে ৯৯৫ টাকা। বর্তমানে* শেয়ার প্রতি দাম ৭৫১ টাকা।

৫. ডালমিয়া ভারত(Dalmia Bharat): সংস্থার মুনাফার পরিমাণ ভালই। ফলে আগামিদিনে অনেকটাই বাড়তে পারে শেয়ারদর। আপাতত এক একটি শেয়ারের দাম* ২,০২২.৮৫ টাকা। ইয়েস সিকিউরিটজ টার্গেট রেখেছে ২,৬৪০ টাকা।

৬. ইন্ডিয়ামার্ট(IndiaMart): ইয়েস সিকিউরিটজের ধারণা ১২ মাসের মধ্যে স্টকটি সম্ভাব্যভাবে ১০,২০০ টাকা করে হবে। বর্তমানে* দাম ৭,৩১৮ টাকা করে।

৭. পিএনসি ইনফ্রা(PNC Infra): বর্তমানে* সংস্থার এক একটি শেয়ারের দাম ৩৩৩ টাকা করে। কিন্তু ১২ মাসের জন্য লক্ষ্য মাত্রা ৪৬০ টাকা রেখেছে ইয়েস সিকিউরিটজ। সংস্থার ইতিবাচক ব্যালেন্স শিট রিপোর্ট দেখেই এমন ধারণা করা হচ্ছে।

৮. পলিক্যাবস(Polycabs): লক্ষ্য মূল্য ৩,৩০০ টাকা। বর্তমানে* পলিক্যাবসের শেয়ার প্রতি দর ২,৩৩৮ টাকা।

৯. আইসিআইসিআই ব্যাঙ্ক(ICICI Bank): লক্ষ্য মূল্য ১,১১২ টাকা। বর্তমানে* শেয়ার দর ৭৮৫.৯৫ টাকা।

১০. এসবিআই কার্ডস(SBI Cards): করোনা পরিস্থিতি নিম্নমুখী। তাই আগামী অর্থবর্ষের দ্বিতীয় ত্রৈমাসিক থেকে রিকভারি হতে পারে এই শেয়ারের। ফলে এখানে ১২ মাসের জন্য টাকা রাখা যেতে পারে। বর্তমানে* এক একটি শেয়ারের দাম ১,১০৫.৮ টাকা। টার্গেট প্রাইস রাখা যেতে পারে ১০,২০০ টাকা পর্যন্ত।

১১.ক্রিসিল(CRISIL): ইয়েস সিকিউরিটিজ এই স্টকের জন্য ৪,৪৬০ টাকা মূল্যের লক্ষ্যমাত্রা স্থির করেছে। বর্তমানে* শেয়ার দর ২,৮১৫.০৫ টাকা।

১২. গ্ল্যান্ড ফার্মা(Gland Pharma): সংস্থাটি পেপটাইড, হরমোন ইত্যাদি ইঞ্জেকশনের বাজারে ঢুকছে। অন্যদিকে নতুন ধরনের পেন বা কার্তুজের মাধ্যমে টিকাদানের ব্যবসা ধরছে। ফলে সংস্থার আয় আগামী ২-৩ বছরের মধ্যে বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনা প্রবল। সেই কারণেই ইয়েস সিকিউরিটিজ এতে ৪,৯২৫ টাকার লক্ষ্য মূল্যের পরামর্শ দিচ্ছে। বর্তমানে* এক একটি শেয়ারের দাম ৩,৬৯০.১৫ টাকা।

* ৩ নভেম্বর ২০২১ অনুসারে।

উপরের তালিকা সম্পূর্ণভাবে ইয়েস সিকিউরিটিজের সুপারিশ অনুযায়ী। হিন্দুস্তান টাইমস বাংলা, প্রতিবেদক বা কোনও একক শেয়ার বিশেষজ্ঞের নয়।

বন্ধ করুন