বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বামন গোরুকে দেখতে ভিড়, গিনেস বুকে নাম তোলার ভাবনা মালিকের
ছবি : ফেসবুক (Facebook)
ছবি : ফেসবুক (Facebook)

বামন গোরুকে দেখতে ভিড়, গিনেস বুকে নাম তোলার ভাবনা মালিকের

  • ঢাকা থেকে ৩০ কিলোমিটার দক্ষিণের এই গ্রামে এখন দূর দূর থেকে মানুষ ভিড় করছেন।

লকডাউনের মধ্যেও বামন গোরুকে দেখতে ভিড় জমাচ্ছেন হাজার হাজার মানুষ। বাংলাদেশের এই বামন গোরুই বিশ্বের ক্ষুদ্রতম গোরু হতে পারে, মত অনেকেরই। গিনেস বুকেও এই মর্মে নাম তোলার কথা ভাবছেন গোরুর মালিক।

বাংলাদেশের চারিগ্রামের এই গোরু লম্বায় ৬৬ সেন্টিমিটার। ঢাকা থেকে ৩০ কিলোমিটার দক্ষিণের এই গ্রামে এখন দূর দূর থেকে মানুষ ভিড় করছেন।

ছোট্ট গোরুটির নাম রানি। শিখর এগ্রি ফার্মে জন্মেছে এই গোরু। এক আগে বিশ্বের ক্ষুদ্রতম গোরু ছিল কেরলে। মনিক্যম নামের সেই গোরুটিই বিশ্বের সবচেয়ে ছোট গোরু হিসাবে রয়েছে গিনেস বুকে। এবার সেই রেকর্ড ভেঙে যাবে বলে মনে করছেন ফার্মের ম্যানেজার হাসান হাওয়ালদার।

রানি প্রজাতির দিক দিয়ে একটি ভুটানি গোরু। সাধারণত মাংসের জন্যই এই গোরু পালন করা হয় বাংলাদেশ ও ভুটানে। শিখর এগ্রি ফার্মের মালিক জানালেন সাধারণত বেশ বড়ই চেহারা হয় এই গোরুর। কিন্তু রানি বামন হওয়ায় সেটি এত ছোট।

ছোট্ট এই গোরুকে দেখতে গত তিন দিনে প্রায় ১৫ হাজার মানুষ ভিড় করেছেন। সোশ্যাল মিডিয়া ও টিভিতে দেখে একে দেখতে আসছেন অনেকে। তোলা হচ্ছে সেলফিও।

পশু চিকিত্সক ডঃ ইএম মহম্মদ জানান, 'বাংলাদেশে খাদ্যাভ্যাস, আবহাওয়ার জন্য এমনিতেই গোরুর আকার ছোট হয়। বাংলাদেশে জন্ম নেওয়া বাছুরই অন্য স্থানে নিয়ে গেলে তার আকার বৃদ্ধি পাবে।' তবে এই গোরুটি জন্মগতভাবে ছোট। তাই এটি লম্বায় এত কম বলে মনে করা হচ্ছে।

বন্ধ করুন