বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সোনা পাচার হচ্ছে, জানত কেরালা মুখ্যমন্ত্রীর অফিস, আদালতে দাবি করল ED
দাবি উঠেছে মুখ্যমন্ত্রীর ইস্তফার (PTI)
দাবি উঠেছে মুখ্যমন্ত্রীর ইস্তফার (PTI)

সোনা পাচার হচ্ছে, জানত কেরালা মুখ্যমন্ত্রীর অফিস, আদালতে দাবি করল ED

  • ক্রমশ বিপদ বাড়ছে পিনারাই বিজয়নের। 

কেরালায় সোনা পাচার মামলায় এবার জল গড়াল মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নের অফিস পর্যন্ত। এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট কোচির বিশেষ আদালতকে যে জানিয়েছে স্মাগলিংয়ের বিষয়টি জানত বিজয়নের অফিস। এই প্রথম বার এরকম কথা জানাল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটি। তাদের দাবি মামলায় প্রধান অভিযুক্ত স্বপ্না সুরেশ তাদের এই তথ্য দিয়েছেন। 

গত সপ্তাহেই বিজয়নের অতিরিক্ত আপ্ত সহায়ক রবীন্দ্রনকে তলব করেছিল ইডি। যদিও কোভিড পজিটিভ হওয়ায় সে যেতে পারেনি। সিপিএম দলের সদস্য রবীন্দ্রন মুখ্যমন্ত্রী ঘনিষ্ঠ। অভিযুুক্তরা তাঁর বিরুদ্ধে লিখিত বয়ান দিয়েছে বলে জানা গিয়েছে। আদালতকে দেওয়া স্টেটমেন্টে ইডি বলেছে যে অন্যতম অভিযুক্ত তথা রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যসচিব শিবশঙ্কর বিভিন্ন চুক্তিতে হওয়া অসঙ্গতির কথা জানত ও সুরেশকে এই সম্পর্কিত তথ্য প্রদান করত সে। ইতিমধ্যে শিবশঙ্করের সঙ্গে দূরত্ব বাড়িয়েছে কেরল সরকার ও সিপিআইএম। কিন্তু রবীন্দ্রনের নাম জড়িয়ে যাওয়ায় আরো বিপাকে পড়বে তারা। 

বিভিন্ন কেন্দ্রীয় সরকারি এজেন্সি এই সোনা পাচার মামলায় তদন্ত করছে। তবে এই তদন্তের স্বার্থে কাগজপত্র ঘাঁটতে গিয়ে আরো বিভিন্ন লেনদেনে অসঙ্গতির কথা জানতে পারছে ইডি। ফলে বিপদ বাড়়ছে পি বিজয়নের। ইতিমধ্যেই বিরোধীরা ইস্তফার দাবি করছেন। তাদেরকে তিনি উপেক্ষা করলেও কয়েক মাস বাদে নির্বাচনের সময় জনতাকে গিয়ে কি সাফাই দেবেন বিজয়ন, সেটা নিয়েই এখন চিন্তিত দল। 

 

বন্ধ করুন