বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Viral Video: ঝুপড়িতে বসে বৃদ্ধ যা করলেন… চোখে জল নেটিজেনদের
ছবি: টুইটার (Twitter)

Viral Video: ঝুপড়িতে বসে বৃদ্ধ যা করলেন… চোখে জল নেটিজেনদের

  • ক্লিপটিতে একজন বয়স্ক ব্যক্তিকে সারাদিনের আয়ের টাকা গুনতে দেখা গিয়েছে। একটি ছোট্ট ঝুপড়ি দোকানের টেবিল চেয়ারে বসে এক গোছা নোট ও কয়েন গুনছিলেন ওই বৃদ্ধ। নেটিজেনদের আবেগঘন করে তুলেছে তাঁর এই ছবি। টুইটারে ৩ লক্ষেরও বেশি ভিউ পেয়েছে এই ভিডিয়ো।

দিনের উপার্জনটুকু গুনছেন এক বৃদ্ধ। তার মধ্যেই যেন লুকিয়ে কত কষ্ট, আর্থিক অনটনের কাহিনী। সোশ্যাল মিডিয়ায় সম্প্রতি এমনই এটি ভিডিয়ো ভাইরাল হয়েছে। ভিডিয়োটি শেয়ার করে এক টুইটার ব্যবহারকারী লিখেছেন, 'দিনের আয়'।

ছোট্ট ক্লিপটিতে একজন বয়স্ক ব্যক্তিকে সারাদিনের আয়ের টাকা গুনতে দেখা গিয়েছে। একটি ছোট্ট ঝুপড়ি দোকানের টেবিল চেয়ারে বসে এক গোছা নোট ও কয়েন গুনছিলেন ওই বৃদ্ধ। নেটিজেনদের আবেগঘন করে তুলেছে তাঁর এই ছবি। টুইটারে ৩ লক্ষেরও বেশি ভিউ পেয়েছে এই ভিডিয়ো। ভিডিয়োটি কোথাকার,বা ওই বৃদ্ধের পরিচয় এখনও জানা যায়নি। তবে ভিডিয়োয় দেখা যাচ্ছে, তিনি সম্ভবত কোনও নদীর ধারের ঝুপড়ি দোকানে বসে আছেন। আরও পড়ুন : কচ্ছপের ভিড় থেকে খুঁজে বের করুন দেখি একটি সাপ! ৪৫ সেকেন্ডের মধ্যে পারবেন?

ভিডিয়োর বৃদ্ধকে দেখে কার্যত আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছেন নেটিজেনরা। এক টুইটার ব্যবহারকারী লিখেছেন, 'আল্লাহ এমন মানুষদের সাহায্য করুন। আমাদের রাজনীতিবিদদের লড়াই-হানাহানির মানসিকতা থেকে বেরিয়ে এসে মানব উন্নয়নে মনোনিবেশ করার সুবুদ্ধি দিন।'

কমেন্টে এক ব্যক্তি তাঁর নিজের আবেগঘন অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন। তিনি লিখেছেন, 'কয়েকদিন আগেই আমি সকালে একটি ই-রিকশায় যাচ্ছিলাম। সেই চালকেরও বয়স এনার মতোই হবে। গন্তব্যে পৌঁছে আমি তাঁকে ২০ টাকার একটি নোট দিলাম। তিনি সেটি তাঁর কপালে ছুঁয়ে, চুম্বন করে পকেটে রাখেন। এই সামান্য বিষয়টিতেই কেন জানি না খুব আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলাম।' আরও পড়ুন : Toilet: বই নয়, ছাত্রীদের হাতে ঝাঁটা, টয়লেট পরিষ্কারে বাধ্য করা হল তাদের

অপর একজন টুইটার ব্যবহারকারী ওই বৃদ্ধের প্রতি সম্মান জানিয়ে টুইট করেছেন, 'এই আয় টাকার অঙ্কে ছোট হতে পারে। কিন্তু কষ্টে অর্জিত এই টাকা অন্য অনেকের অসত্ উপায়ে আয় করা কোটি কোটি টাকার চেয়েও অনেক ভাল এবং মধুর। তাঁর প্রতি শ্রদ্ধা জানাই। হে মহান প্রভু, ওঁকে আশীর্বাদ করুন।'

আপনিও কি কখনও এমন দৃশ্যের সাক্ষী হয়েছেন?

বন্ধ করুন