বাড়ি > ঘরে বাইরে > অনেক সেনা সরেছে, চিনের সঙ্গে সীমান্তে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে- সেনাপ্রধান
ইতিবাচক বার্তা দিলেন সেনাপ্রধান এম এম নারভানে
ইতিবাচক বার্তা দিলেন সেনাপ্রধান এম এম নারভানে

অনেক সেনা সরেছে, চিনের সঙ্গে সীমান্তে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে- সেনাপ্রধান

ইতিবাচক বার্তা দিলেন সেনাপ্রধান এম এম নারভানে। 

চিনের সঙ্গে সীমান্তে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে বলে আশ্বাস দিলেন সেনাপ্রধান এম এম নারভানে। প্রসঙ্গত প্রায় পাঁচ সপ্তাহ ধরে পূর্ব লাদাখে একেবারে মুখোমুখি ভারত-চিন সেনা। শুধু লাদাখেই নয়, পুরো সীমান্ত জুড়েই সেনা বাড়িয়েছে চিন। পালটা পদক্ষেপ নিয়েছে ভারতও। 

এদিন সেই প্রসঙ্গেই নিজের বক্তব্য রাখেন সেনাপ্রধান। তিনি বলেন যে দফায় দফায় কথা হচ্ছে চিনের সঙ্গে। কোর কম্যান্ডার লেভেলে আলোচনার পর এখন স্থানীয় স্তরে কম্যান্ডারদের মধ্যে কথা চলছে। 

এর ফলে সেনার সংখ্যা সীমান্তে কমেছে বলে জানান নারভানে। তিনি আশাপ্রকাশ করেন যে আলোচনার মাধ্যমে আপাতদৃষ্টিতে যে সব বিভেদ আছে দুই দেশের মধ্যে সীমান্ত নিয়ে, তা মিটে যাবে। সবকিছু নিয়ন্ত্রণে রয়েছে বলে দাবি করেন সেনাপ্রধান। শুক্রবার প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং চিন নিয়ে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক করেন যেখানে পুরো পরিস্থিতি সম্বন্ধে তাকে অবহিত করান সেনাপ্রধান। রাজনাথ আলোচনার ওপর জোর দিলেও শক্ত হাতে মধ্যস্থতা করার পরামর্শ দিয়েছেন, সূত্রের খবর। 

নেপালের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক সবসময়ই মজবুত থাকবে বলেও আশা প্রকাশ করেন সেনাপ্রধান। তিনি বলেন যে মানুষের সঙ্গে মানুষের নিবিড় যোগাযোগ আছে দুই দেশের মধ্যে। একই সঙ্গে  ভৌগলিক, ঐতিহাসিক, ধার্মিক ও সাংস্কৃতিক যোগের কথাও মনে করিয়ে দেন তিনি। 

প্রসঙ্গত ভারতের তিনটি স্থানকে নিজের বলে দাবি করে আজ ম্যাপ প্রকাশ করবে নেপাল। আগুনে ঘি পড়েছে গতকাল নেপাল পুলিশ যেভাবে এক নিরপরাধ ভারতীয়কে গুলি করে হত্যা করেছে সেই নিয়ে। 

কিন্তু চিন ও নেপাল, উভয় প্রতিবেশীকে নিয়েই সংযমী বক্তব্য রাখলেন সেনাপ্রধান। বুঝিয়ে দিলেন মোদী সরকারের নীতি যে মধ্যস্থতার ক্ষেত্রে ভারতের স্বার্থ রক্ষা করলেও জনসমক্ষে প্রতিবেশী রাষ্ট্রদের নিয়ে কোনও নেতিবাচক মন্তব্য করা হবে না। 

 

বন্ধ করুন