বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ' সব পুরুষ ধর্ষক নন', রাজ্যসভায় কোন ইস্যুতে সোচ্চার হলেন স্মৃতি ইরানি?
স্মৃতি ইরানির (ছবি সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)

' সব পুরুষ ধর্ষক নন', রাজ্যসভায় কোন ইস্যুতে সোচ্চার হলেন স্মৃতি ইরানি?

  • স্মৃতি ইরানি বলেন, 'বর্তমানে ৩০ টি হেল্পলাইন দেশের ৬৬ লাখ মহিলাকে সাহায্য করেছে। বর্তমানে সারা দেশে ৭০৩ টি ওয়ানস্টপ সেন্টার কার্যকরী রয়েছে। যার হাত ধরে ৫ লাখ মহিলা সাহায্য পেয়েছেন। দেশে মহিলা ও শিশুদের নিরাপত্তা দেওয়া আমাদের কাছে অগ্রাধিকার।'

বৈবাহিক ধর্ষণ ইস্যুতে রাজ্যসভায় সিপিআই নেতা বিনয় বিশ্বমের এক প্রশ্নের জবাব দিতে উঠে এদিন ধর্ষণ ইস্যুতে মুখ খোলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি। তিনি বলেন, মহিলা ও শিশুদের নিরাপত্তা চিরকালই অগ্রাধিকার পাবে, তবে প্রতিটি বিয়েকেই হিংস্রতার তকমা দেওয়ার কোনও যুক্তি নেই। তিনি সোচ্চার কণ্ঠে বলেন, 'প্রতিটি পুরুষই ধর্ষক এমন নয়।'

রাজ্যসভায় এদিন সিপিআই নেতা বিনয় বিশ্বম প্রশ্ন তোলেন ভারতীয় দণ্ডবিধিতে গার্হ্যস্থ হিংসার আইন, ২০০৫ এর ৩ নম্বর ধারা নিয়ে কতটা তৎপর সরকার? উল্লেখ্য, এই ধারার আওতায় গৃহস্থের অন্দরে মানসিক, সংবেদনশীলতার দিক থেকে, যৌন সঙ্গমের দিক থেকে অত্যাচারের প্রসঙ্গে বিধি বর্ণিত রয়েছে। এমনকি আর্থিক দিক থেকে ঘরোয়া হিংসা নিয়েও রয়েছে বিধি। এই প্রসঙ্গে বক্তব্য রাখতে উঠে কেন্দ্রীয় নারী ও শিশুকল্যাণ মন্ত্রকের মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি বলেন, 'বর্তমানে ৩০ টি হেল্পলাইন দেশের ৬৬ লাখ মহিলাকে সাহায্য করেছে। বর্তমানে সারা দেশে ৭০৩ টি ওয়ানস্টপ সেন্টার কার্যকরী রয়েছে। যার হাত ধরে ৫ লাখ মহিলা সাহায্য পেয়েছেন। দেশে মহিলা ও শিশুদের নিরাপত্তা দেওয়া আমাদের কাছে অগ্রাধিকার।' এদিকে, স্মৃতি ইরানির জবাব পেয়ে পাল্টা মোদী সরকারকে আক্রমণে নামেন বাম নেতা বিনয় বিশ্বম। তিনি বলেন, স্মৃতি ইরানি তাঁর বক্তব্য দিয়ে সংসদের উচ্চকক্ষকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন। তাঁর মন্তব্যে গার্হস্থ্য হিংসা তথা বৈবাহিক ধর্ষণের মতো বিষয়কে ছোট করে দেখানো হচ্ছে।

বাম নেতা বলেন, বর্তমানে বহু মহিলা বৈবাহিক ধর্ষণের শিকার হয়ে যাচ্ছেন। আর তাঁদের প্রসঙ্গ তুলেই সরকার কী পদক্ষেপ নিচ্ছে , তা জানতে চান এই বাম নেতা। উল্লেখ্য, বৈবাহিক ধর্ষণ ইস্যুতে একাধিক বিষয় সামনে আসে। ধর্ষণ আইনের আওতায় দুই তরফের একমত হওয়ার মতো বিষয়ও গুরুত্বপূর্ম বলে বিবেচিত হয়। এক্ষেত্রে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৫ ধারা অনুযায়ী, যে সঙ্গম কারোর মতের বিপক্ষে, জোরপূর্বক, প্রতারণামূলক ও বয়সের নিরিখে বিধি বহির্ভূত তাকে ধর্ষণ বলে গণ্য করা হবে। বহু ক্ষেত্রে বিবাহের মধ্যে থেকে মহিলারা ধর্ষণের শিকার হচ্ছেন বলে অভিযোগ উঠে আসে। সেই ইস্যুতেই এদিন রাজ্যসভায় আলোচনার জন্য সওয়াল করেন বাম নেতা বিনয় বিশ্বম।

বন্ধ করুন