বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ক্যাপিটল হিংসার জের, কমপক্ষে ২ বছরের জন্য ট্রাম্পকে নিষিদ্ধ ঘোষণা ফেসবুকের
প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)
প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)

ক্যাপিটল হিংসার জের, কমপক্ষে ২ বছরের জন্য ট্রাম্পকে নিষিদ্ধ ঘোষণা ফেসবুকের

  • যথারীতি ফেসবুকের সেই নিষেধাজ্ঞার সমালোচনা করেছেন ট্রাম্প।

কমপক্ষে দু'বছরের জন্য প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে নিষিদ্ধ করল ফেসবুক।এমনিতে চলতি বছর ৬ জানুয়ারি ক্যাপিটল হিলে হিংসার ঘটনায় সমর্থকদের উস্কানি দেওয়ার অভিযোগে ট্রাম্পের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। এবার সেই মেয়াদ বাড়িয়ে ২০২১ সালের ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত করা হল।

ফেসবুকের ভাইস প্রেসিডেন্ট (গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্স) নিক ক্লেগ একটি বিবৃতিতে জানিয়েছেন, যে ঘটনার জন্য ট্রাম্পকে নিষিদ্ধ করা হয়েছে, সেই ‘ঘটনার গুরুত্ব’ বিবেচনা করে স্পষ্ট হয়েছে যে প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট সোশ্যাল মিডিয়া সংস্থার নিয়ম লঙ্ঘন করেছেন। সেজন্য দু'বছরের জন্য ট্রাম্পকে নিষিদ্ধ করা হচ্ছে। ৭ জানুয়ারি থেকেই সেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ কার্যকরী হবে।

যথারীতি ফেসবুকের সেই নিষেধাজ্ঞার সমালোচনা করেছেন ট্রাম্প। একটি বিবৃতিতে তিনি বলেন, ‘রেকর্ড তৈরি করা ৭৫ মিলিয়ন মানুষ-সহ অনেক মানুষের জন্য অপমানজনক ফেসবুকের এই সিদ্ধান্ত। ২০২০ সালের রিগিং হওয়া মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে যাঁরা আমাদের ভোট দিয়েছিলেন। ওরা (ফেসবুক) এই সেন্সরশিপ এবং মানুষকে চুপ করানোর জন্য নিস্তার পাবে না। শেষপর্যন্ত জয় আমাদেরই হবে। আমাদের দেশ এই অপব্যবহার আর বরদাস্ত করবে না।’

ইতিমধ্যে ক্যাপিটল হিলের হিংসার পর ট্রাম্পকে আজীবন নিষিদ্ধ করে দিয়েছে টুইটার। একই কাজ করেছে অ্যালফাবেটের ইউটিউব। তারইমধ্যে সম্প্রতি নিজের ব্লগও বন্ধ করে দেন ট্রাম্প। সেই পরিস্থিতিতে ফেসবুকের নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বেড়ে যাওয়ায় ২০২২ সালের নভেম্বরে মার্কিন কংগ্রেসের নির্বাচনের আগে রিপাবলিকান ট্রাম্পের প্রচার জোরালো ধাক্কার মুখে পড়ল বলে মত সংশ্লিষ্ট মহলের। যদিও আপাতত যতদিন নিষিদ্ধ করা হয়েছে, সেই অনুযায়ী, ২০২৪ সালের শেষের দিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ঢের আগেই ফেসবুকে ফিরতে পারবেন তিনি। তবে ট্রাম্প আভাস দিয়েছেন যে তিনি নিজেই সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম চালু করবেন।

বন্ধ করুন