বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ওভারটাইম ভাতা-পুরস্কারের মতো খরচ কমান, সরকারি দফতরগুলিকে নির্দেশ অর্থমন্ত্রকের
ফাইল ছবি : পিটিআই (PTI)
ফাইল ছবি : পিটিআই (PTI)

ওভারটাইম ভাতা-পুরস্কারের মতো খরচ কমান, সরকারি দফতরগুলিকে নির্দেশ অর্থমন্ত্রকের

নিয়ন্ত্রিতভাবে টাকা খরচ করতে বলা হয়েছে প্রত্যেক মন্ত্রক ও দফতরকে।

করোনার ফলে এমনিতেই খরচ তুঙ্গে। নির্দিষ্ট লক্ষ্যমাত্রাকে টপকে যেতে পারে ফিসকাল ডেফিসিট। তাই অপ্রয়োজনীয় খরচে রাশ টানার নির্দেশ দিল কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রক। নিয়ন্ত্রিতভাবে টাকা খরচ করতে বলা হয়েছে প্রত্যেক মন্ত্রক ও দফতরকে।

'কেন্দ্রীয় সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে প্রতিটি মন্ত্রক/দফতরে ২০% খরচ কমানো হবে। প্রতিটি মন্ত্রককে এ বিষয়ে পদক্ষেপ করতে অনুরোধ করা হচ্ছে,' বলা হয়েছে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের নির্দেশিকায়। মিন্ট সূত্রে মিলেছে এমনটাই খবর।

কীভাবে রাশ টানা হবে?

১. ওভারটাইম ভাতা

২. পুরস্কার

৩. দেশের মধ্যে ও বিদেশ যাত্রা

৪. দফতর চালানোর খরচ

৫. অফিস ভাড়া-কর

৬. রয়্যালটি

৭. প্রশাসনিক খরচ

৮. বিজ্ঞাপন ও প্রচার

৯. রক্ষণাবেক্ষণ

১০. অনুদান

উপরিক্ত খাতে খরচ কমানো হবে আগামিদিনে।

খরচ কমানোর চেষ্টার কারণ:

কেন্দ্রীয় বাজেট অনুযায়ী যে ফিসকাল ডেফিসিটের পূর্বাভাস করা হয়েছে, তার তুলনায় বেশি হতে পারে, এমনটাই আশঙ্কা করা হচ্ছে। কেয়ার রেটিংস-এর প্রধান অর্থনীতিবিদ মদন সবনবীশ জানান, 'একদিকে ফিসকাল ডেফিসিটের কোয়ান্টামে বৃদ্ধি, অন্যদিকে জিডিপির পতন। এর ফলে ২০২১-২২ অর্থবর্ষে ফিসকাল ডেফিসিট ৭.৫% থেকে ৭.৭% হতে পারে। বাজেটের ঘোষণার থেকে যা প্রায় ০.৭ থেকে ০.৯ শতাংশ বেশি।'

করোনা পরিস্থিতিতে প্রায় সব মন্ত্রক ও দফতরেই বেড়েছে খরচ। করোনা মোকাবিলা সংক্রান্ত খরচ তো রয়েইছে। সেই সঙ্গে কম কর্মী নিয়েই চলছে বেশ কিছু দফতর। ফলে, আগের তুলনায় কাজের গতিও তুলনামূলক কম। এমন পরিস্থিতিতে অপ্রয়োজনীয় খরচে রাশ টানতে চাইছে কেন্দ্র।

বন্ধ করুন