বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Fraud Astrologer: স্বামীকে বশ করার চেষ্টায় জ্যোতিষীর দ্বারস্থ মহিলা! খোয়ালেন ৫৯ লাখ টাকা, এরপর?

Fraud Astrologer: স্বামীকে বশ করার চেষ্টায় জ্যোতিষীর দ্বারস্থ মহিলা! খোয়ালেন ৫৯ লাখ টাকা, এরপর?

ভুয়ো জ্যোতিষকে গ্রেফতার করেছে মুম্বই পুলিশ।

স্বামীর ওপর সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ যাতে ধরে রাখতে পারেন মহিলা, তার জন্য ওই অভিযুক্ত জ্যোতিষকে কিছু 'কাজ' করার জন্য ৫৯ লাখ টাকা দিয়েছিলেন মহিলা। অন্ধেরি ইস্টের বাসিন্দা ৩৯ বছর বয়সী ওই ব্যবসায়ী একটি বড়সড় ইন্ডাস্ট্রিয়ার ইউনিটের মালিক। তাঁর স্ত্রী ও দুই সন্তান রয়েছে পরিবারে। ঘটনার পরম্পরা এখানেই শেষ নয়। অভিযোগকারীর স্ত্রী গত ১৩ বছর ধরে এক ব্যক্তির সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্ক রয়েছে বলে জানা যায়।

মুম্বইয়ের পাওয়াই পুলিস স্টেশনের এক জ্যোতিষকে গ্রেফতার করার ঘচনা সদ্য প্রকাশ্যে আসে। জানা গিয়েছে, স্থানীয় এক ব্যবসায়ীর স্ত্রী তাঁকে ৫৯ লাখ টাকা দিয়েছিলেন এক বিশেষ ‘কাজ’ এর জন্য। অভিযোগ, সেই টাকা নিয়ে বুজরুকি করেছেন ওই জ্যোতিষ। এবার প্রশ্ন হল  কোন বিশেষ ‘কাজ’ এর জন্য জ্যোতিষীকে টাকা দিয়েছিলেন মহিলা? রয়েছে তারও উত্তর।

জানা গিয়েছে, স্বামীর ওপর সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ যাতে ধরে রাখতে পারেন মহিলা, তার জন্য ওই অভিযুক্ত জ্যোতিষকে কিছু 'কাজ' করার জন্য ৫৯ লাখ টাকা দিয়েছিলেন মহিলা। অন্ধেরি ইস্টের বাসিন্দা ৩৯ বছর বয়সী ওই ব্যবসায়ী একটি বড়সড় ইন্ডাস্ট্রিয়ার ইউনিটের মালিক। তাঁর স্ত্রী ও দুই সন্তান রয়েছে পরিবারে। ঘটনার পরম্পরা এখানেই শেষ নয়। অভিযোগকারীর স্ত্রী  গত ১৩ বছর ধরে এক ব্যক্তির সঙ্গে পরকীয়া সম্পর্ক রয়েছে বলে জানা যায়। এদিকে, তাঁর স্বামী সেই পরকীয়া সম্পর্কের বিষয়ে জানতে পারেন। তারপর সমঝোতা বশত সেই পরকীয়া সম্পর্ক ভেঙে যায়। এরপর আসা যাক, বর্তমান ঘটনায়। অক্টোবরের দ্বিতীয় সপ্তাহে বাড়ির ক্যাবিনেটে ৩৫ লাখ টাকা রেখেছিলেন ব্যবসায়ী। অভিযোগ সেই টাকা চুরি হয়। আর সেই টাকার বিষয়ে জানতেন ব্যক্তির স্ত্রী। এরপর শুরু হয় খোঁজ। তাতেই জানা যায় যে, মহিলার কাছে ওই টাকা যায়, আর স্বামীর ওপর সম্পূর্ণ কর্তৃত্ব ধরে রাখতেই তিনি জ্যোতিষিকে এই টাকা দেন।

স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই জানা গিয়েছে যে, রোজ স্বামীর সঙ্গে ঝগড়াঝাঁটি হতেই বিরক্ত হন মহিলা। জানা যায়, এই ঝগড়া থেকে মুক্তি পেতে জ্যোতিষী বাদল শর্মার সঙ্গে যোগাযোগ করেন মহিলা। তারপরই ওই জ্যোতিষী মহিলার থেকে ৫৯ লাখ টাকা নেন, বিনিময়ে মহিলাকে কালোজাদু করে তাঁর স্বামীর ওপর কর্তৃত্ব করার ক্ষমতা প্রদান করবেন বলে। এরপর টাকা চলে যায়, তবে লাভ পাননি বলে দাবি মহিলার। 

 

 

 

 

 

 

 

বন্ধ করুন