বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > G-20: বিশ্ব উষ্ণায়ন কমানোর প্রতিশ্রুতির মাঝেই 'জিরো এমিশন' নিয়ে ধোঁয়াশা
জি ২০ সম্মেলনে যোগ দিতে যাওয়া রাষ্ট্রপ্রধানরা (ছবি: পিটিআই)

G-20: বিশ্ব উষ্ণায়ন কমানোর প্রতিশ্রুতির মাঝেই 'জিরো এমিশন' নিয়ে ধোঁয়াশা

  • বিশ্ব উষ্ণায়ন ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে সীমিত করতে হলে ২০৫০ সালের মধ্যে গ্রিন হাউস গ্যাস নির্গমন শূন্যে নামিয়ে আনতে হবে বিশ্বে।

জি-২০ দেশের নেতারা রবিবার গ্লোবাল ওয়ার্মিং বা বিশ্ব উষ্ণায়ন ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে সীমিত করার লক্ষ্যে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হলেন। তবে শূন্য নির্গমনের লক্ষ্যে একমত হতে ব্যর্থ হলেন। ২০৫০ সালের মধ্যে 'জিরো এমিশনে'র লক্ষ্যমাত্রা পূর্ণ করা নিয়ে কার্যত নীরবতা পালন করতে দেখা গেল জি-২০ দেশের নেতাদের। সম্মেলন শেষে রাষ্ট্রপ্রধানদের যৌথ বিবৃতিতে নির্গমনের লক্ষ্যমাত্রা সম্পর্কিত কোনও উল্লেখ থাকে কি না, সেই দিকে নজর সবার।

এদিকে বিশ্ব উষ্ণায়ন ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে সীমিত করতে হলে ২০৫০ সালের মধ্যে গ্রিন হাউস গ্যাস নির্গমন শূন্যে নামিয়ে আনতে হবে বিশ্বে। ২০৩০ সালের মধ্যেই নির্গমনের মাত্রা আর্ধেক করতে হবে। প্রসঙ্গত, ভারত, চিন, আমেরিকা, রাশিয়াসহ ইউরোপীয় ইউনিয়নের দেশগুলি স্বল্প, মাঝারি এবং দীর্ঘমেয়াদি লক্ষ্য স্থির করার কথা বললেও বিশ্ব উষ্ণায়ন নিয়ে যৌথ কোনও পরিকল্পনা তৈরি করতে ব্যর্থ হয়েছে দেশগুলি।

প্রসঙ্গত, চিন, আমেরিকা, ভারত, ব্রাজিল এবং জার্মানি - জি-২০ গোষ্ঠীভুক্ত এই পাঁচটি দেশ বিশ্বের মোট গ্রিন হাইস গ্যাস নির্গমনের ৮০ শতাংশের জন্য দায়ী। এই পরিস্থিতিতে বিশ্বের পরিবেশবিদদের একাংশের মত, জি-২০ সম্মেলনে দেশগুলি পরিবেশ রক্ষা নিয়ে উচ্চাকাঙ্ক্ষার অভাব দেখিয়েছে। পাশাপাশি তারা এই বিষয়ে দূরদর্শীও নন।

চিনের দাবি, ২০৬০সালের মধ্যে তারা নিজেদের দেশে পরিবেশরক্ষায় বড় পদক্ষেপ নিতে পারবে। এর জেরে 'নেট জিরো এমিশনে'র লক্ষ্য প্রশ্নচিহ্নের মুখে। তবে আগামী কয়েকবছরে যে বিশ্বের গড় তাপমাত্রা ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের বেশি বাড়তে দেওয়া যাবে না, তা নিয়ে সহমত পোষণ করেছে জি-২০ গোষ্ঠীভুক্ত সব দেশ।

 

বন্ধ করুন