বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ‘সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগের’ মোকাবিলায় ২০ কোটি ইউরো বরাদ্দ জার্মানির
‘সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগের’ মোকাবিলায় ২০ কোটি ইউরো বরাদ্দ জার্মানির। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)
‘সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগের’ মোকাবিলায় ২০ কোটি ইউরো বরাদ্দ জার্মানির। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)

‘সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগের’ মোকাবিলায় ২০ কোটি ইউরো বরাদ্দ জার্মানির

  • এই বন্যাকে জার্মানির সাম্প্রতিক ইতিহাসের সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগ বলে মনে করা হচ্ছে৷

সাম্প্রতিক বন্যায় বাড়ি-ঘর, ব্যবসা, রাস্তাঘাট ও রেলপথের কয়েকশো কোটি ইউরোর ক্ষতি হওয়ার পর তা কাটিয়ে উঠতে আক্রান্ত এলাকায় জরুরি অর্থ সহায়তা ঘোষণা করেছে অ্যাঞ্জেলা মের্কেল সরকার৷

বুধবার এ নিয়ে কথা বলতে মন্ত্রিসভার সঙ্গে বৈঠক করেন মের্কেল৷ বৈঠকের পর অর্থমন্ত্রী ওলাফ শোলৎস জানান, জরুরি সহায়তায় ২০ কোটি ইউরো বরাদ্দ করতে রাজি হয়েছে ফেডারেল সরকার৷ এর আগে জার্মান সংবাদ সংস্থা ডিপিএ জানিয়েছিল এই তহবিল হবে ৪০ কোটি ইউরোর৷ এর অর্ধেক দেবে ফেডারেল সরকার, বাকি অর্থ আসবে রাজ্যগুলোর তহবিল থেকে৷

পরবর্তীতে অতিপ্রয়োজনীয় অবকাঠামো পুনর্নির্মাণে বড় আকারের শত কোটি ইউরোর প্যাকেজ ঘোষণা করার কথাও ভাবছে সরকার৷ বন্যায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ এখনো হিসাব করা হচ্ছে৷ তবে সড়ক ও রেলপথ মিলিয়ে ক্ষতির পরিমাণ ২০০ কোটি ইউরো হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে৷

এই অর্থ ফেডারেল ও আঞ্চলিক বাজেট থেকে বরাদ্দ করা হবে৷ ইউরোপীয় ইউনিয়নের সংহতি তহবিল থেকে অর্থ সহায়তা চাওয়ার কথাও ভাবছে জার্মানি৷জার্মানির বিমা প্রতিষ্ঠানগুলোর জোট- জিডিভি জানিয়েছে, নর্থ-রাইন ওয়েস্টফালিয়া ও রাইনল্যান্ড প্যালাটিনেট রাজ্যে বন্যার ক্ষতির জন্য তাদের ৫০০ কোটি ইউরো পর্যন্ত খরচ হতে পারে৷ তবে বাভারিয়া এবং সাক্সনি রাজ্যের ক্ষয়ক্ষতি এই হিসাবের মধ্যে ধরা হয়নি৷ এই বন্যাকে জার্মানির সাম্প্রতিক ইতিহাসের সবচেয়ে ব্যয়বহুল প্রাকৃতিক দুর্যোগ বলে মনে করা হচ্ছে৷

বন্ধ করুন