বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ছ'মাসে সবথেকে সস্তা সোনা, এটাই কি কেনার সুবর্ণ সুযোগ নাকি আরও দাম কমবে?
ছ'মাসে সবথেকে সস্তা হল সোনা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সন্তোষ কুমার/হিন্দুস্তান টাইমস)
ছ'মাসে সবথেকে সস্তা হল সোনা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সন্তোষ কুমার/হিন্দুস্তান টাইমস)

ছ'মাসে সবথেকে সস্তা সোনা, এটাই কি কেনার সুবর্ণ সুযোগ নাকি আরও দাম কমবে?

  • এখন কি সোনা কেনা ভালো? জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

ছ'মাসে সবথেকে সস্তা হল সোনা। সোমবার ভারতীয় বাজারে ১০ গ্রাম সোনার দাম কমে দাঁড়িয়েছে ৪৫,৯০০ টাকা। তবে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, খুব বেশিদিন হলুদ ধাতুর নিম্নমুখী প্রবণতা বজায় থাকবে না। বরং দীপাবলির সময় ১০ গ্রাম সোনার দাম ৫২,০০০ টাকায় পৌঁছে যেতে পারে। সেই পরিস্থিতিতে এটাই সোনা ক্রয়ের সুবর্ণ সুযোগ বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

কিন্তু সোনার দাম এতটা কমল কীভাবে? বিশেষজ্ঞদের বক্তব্য, ফরেক্স বাজারে শক্তিশালী হয়েছে মার্কিন ডলার। পাশাপাশি আফগানিস্তানের পরিস্থিতি নিয়ে আঞ্চলিক রাজনৈতিক উত্তেজনা এবং দক্ষিণ চিন সাগরে চাপানউতোরের কারণেও সোনার দাম কমতে পারে। তবে তাঁদের বক্তব্য, শক্তিশালী ডলারের ধারাবাহিকতা বেশিদিন বজায় থাকবে না। কারণ আন্তর্জাতিক বাজারে বাড়ছে অপরিশোধিত তেলের দাম। তার ফলে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মুদ্রাস্ফীতি হবে। বাড়বে সোনার চাহিদা। সেই পরিস্থিতিতে এখনই সোনা কেনার দুর্দান্ত সময় বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

আইআইএফএল সিকিউরিটিজের কমোডিটি এবং কারেন্সি রিসার্চের ভাইস-প্রেসিডেন্ট বলেছেন, ‘আন্তর্জাতিক বাজারে মার্কিন ডলার শক্তিশালী হওয়ায় সোনার দাম কমেছে। কিন্তু বেশিদিন সেই ধারা বজায় থাকবে না। বিশ্ব বাজারে বাড়ছে অপরিশোধিত তেলের দাম। যা বিশ্বব্যাপী মুদ্রাস্ফীতির কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে। ভারতে আসন্ন উৎসবের মরশুম এবং আফগানিস্তানের ভূ-রাজনৈতিক এবং দক্ষিণ চিন সাগরে উত্তেজনার কারণে দামী ধাতুর চাহিদা বাড়বে।’ সেইসঙ্গে দামও বাড়বে। তিনি জানিয়েছেন, সোনা ক্রয়ের জন্য মেরেকেটে আর কয়েকটি সেশনের অপেক্ষা করা যেতে পারে। আগামী কয়েকটি সেশনে ১০ গ্রাম সোনার দাম ৪০০ টাকা থেকে ৫০০ টাকা কমতে পারে বলে জানিয়েছেন তিনি।

বন্ধ করুন