বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > প্রায় ৩ মাসে সবথেকে সস্তা হল সোনা, জুনেই দাম কমেছে ২,৭০০ টাকা
ভারতীয় বাজারে বুধবারও কমল সোনার দাম। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)
ভারতীয় বাজারে বুধবারও কমল সোনার দাম। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

প্রায় ৩ মাসে সবথেকে সস্তা হল সোনা, জুনেই দাম কমেছে ২,৭০০ টাকা

  • বুধবারও ভারতীয় বাজারে কমল সোনার দাম।

বুধবারও ভারতীয় বাজারে কমল সোনার দাম। তার জেরে প্রায় তিন মাসে সবথেকে সস্তা হয়েছে হলুদ ধাতুর। এমসিএক্স সূচকে অগস্ট গোল্ড ফিউচার্সের দাম কিছুটা কমে দাঁড়িয়েছে ৪৬,৫১৮ টাকা। এক কেজি রুপোর দাম ০.১৬ শতাংশ বেড়ে হয়েছে ৬৮,৩৮১ টাকা।

বিশেষজ্ঞদের মতে, এমসিএক্স সূচকে ৪৬,০০০ টাকার আশপাশে সহায়তা পাচ্ছে ১০ গ্রাম সোনা। বাধা পাচ্ছে ৪৭,৬০০ টাকায়। চলতি মাসে ২,৭০০ টাকার মতো সস্তা হয়েছে ১০ গ্রাম হলুদ ধাতু। আর গত বছর অগস্টে রেকর্ড দরের (১০ গ্রামের দাম ৫৬,২০০ টাকা) থেকে সোনার দাম প্রায় ১০,০০০ টাকা কম আছে।

তারইমধ্যে বিশ্ব বাজারে এক আউন্স সোনার দর আরও কমে দাঁড়িয়েছে ১,৭৬৩.৬৩ ডলার। তার ফলে সাড়ে চার বছরে সর্বাধিক মাসিক পতনের দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে আছে হলুদ ধাতু। জুনে সোনার দাম প্রায় ৭.৫ শতাংশের মতো কমেছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, মার্কিন কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক ফেডারেল রিজার্ভের আচমকা সিদ্ধান্তের জেরে হুড়মুড়িয়ে কমেছে সোনার দাম। তার জেরে এক আউন্স সোনার দাম ১,৮০০ ডলারের নীচে নেমে গিয়েছে। চলতি মাসে ব্লুমবার্গের ডলার স্পট ইনডেক্স বেড়েছে। যা গত বছরের মার্চের পর সবথেকে বেশি উত্থান। তার ফলে অন্যান্য মুদ্রাধারীদের কাছে সোনার দাম অনেকটা বেড়েছে।

জিয়োজিতের তরফে জানানো হয়েছে, আপাতত সোনার নেতিবাচক দৌড় অব্যাহত থাকবে। এক আউন্সের দাম সরাসরি ১,৭৪৫ ডলারের নীচে নেমে গেলে আরও ধাক্কা খাবে হলুদ ধাতু। তবে অপ্রত্যাশিতভাবে দাম ১,৭৯৫ ডলারে গণ্ডি ছাড়িয়ে গেলে নেতিবাচক মনোভাব দূর হতে পারে। বাড়তে পারে সোনার দাম। অন্যদিকে, এক আউন্স রুপোর দাম ০.৩ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৫.৮২ ডলার।

বন্ধ করুন