বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ডিসেম্বরের শুরুতেই উর্ধ্বমুখী সোনা, ৬১,০০০ টাকার কাছে রুপো
নভেম্বরের নিম্নমুখী প্রবণতা কাটিয়ে ডিসেম্বরের শুরুতেই উর্ধ্বমুখী হল সোনা এবং রুপো। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)
নভেম্বরের নিম্নমুখী প্রবণতা কাটিয়ে ডিসেম্বরের শুরুতেই উর্ধ্বমুখী হল সোনা এবং রুপো। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

ডিসেম্বরের শুরুতেই উর্ধ্বমুখী সোনা, ৬১,০০০ টাকার কাছে রুপো

  • শুধুমাত্র গত মাসেই ১০ গ্রাম সোনার দাম ২,৫০০ টাকার মতো কমেছিল।

নভেম্বরের নিম্নমুখী প্রবণতা কাটিয়ে ডিসেম্বরের শুরুতেই উর্ধ্বমুখী হল সোনা এবং রুপো। সোমবার ভারতীয় বাজারে এমসিএক্স সূচকে ১০ গ্রাম ফেব্রুয়ারি গোল্ড ফিউচার্সের দাম ০.৩ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৮,০৭০ টাকা। রুপোর উত্থান আরও বেশি। এক কিলোগ্রাম সিলভার ফিউচার্সের দাম ১.২ শতাংশ বেড়ে হয়েছে ৬০,৯৭৭ টাকা।

গত সেশনে গোল্ড ফিউচার্সের দাম ০.৪ শতাংশ পড়েছিল। রুপোর কমেছিল ০.২ শতাংশ। গত অগস্টে ১০ গ্রাম সোনার দাম রেকর্ড ৫৬,২০০ টাকায় পৌঁছানোর পর মোটের উপর হলুদ ধাতুর নিম্নমুখী প্রবণতা বজায় আছে। শুধুমাত্র গত মাসেই ১০ গ্রাম সোনার দাম ২,৫০০ টাকার মতো কমেছিল।

করোনাভাইরাস টিকা নিয়ে আশাব্যঞ্জক ফলাফল এবং আমেরিকার ঘরোয়া রাজনীতিতে অনিশ্চয়তা কমতে থাকার ফলে বিশ্ব বাজারেও বৃদ্ধি পরিলক্ষিত হচ্ছে। ইতিমধ্যে জো বাইডেনের প্রশাসনের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তরের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। একইসঙ্গে বিশেষজ্ঞদের মতে, আর্থিক নীতি এবং লাগাতার মুদ্রাস্ফীতির যে উদ্বেগ আছে, তাও সোনার দামে সহায়তা করেছে। নিম্নমুূখী ডলারের মধ্যে সোনার দাম হ্রাস পেয়েছে। যা দু'বছরেরও বেশি সময় সর্বনিম্ন স্তরে নেমে গিয়েছে।

দুর্বল ডলারের কারণে বিশ্ব বাজারে সোনার দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। এক আউন্স স্পট গোল্ডের দাম ০.১ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১,৭৭৮.৭৬ ডলার। ডলার সূচক ০.৫ শতাংশ নিম্নমুখী হওয়ায় অন্যান্য মুদ্রাধারীদের কাছে সস্তা হয়েছে সোনা। এক আউন্স রুপোর দাম ০.২ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২২.৬৪ ডলার।

বন্ধ করুন