বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > টানা ২ দিন পড়ল সোনা, রেকর্ডের থেকে প্রায় ৮,০০০ টাকা সস্তা
টানা ২ দিন পড়ল সোনা, রেকর্ডের থেকে প্রায় ৮,০০০ টাকা সস্তা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
টানা ২ দিন পড়ল সোনা, রেকর্ডের থেকে প্রায় ৮,০০০ টাকা সস্তা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

টানা ২ দিন পড়ল সোনা, রেকর্ডের থেকে প্রায় ৮,০০০ টাকা সস্তা

  • বিশ্ব বাজারে ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি সত্ত্বেও ভারতে টানা দু'দিন পড়ল সোনার দাম।

বিশ্ব বাজারে ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি সত্ত্বেও ভারতে টানা দু'দিন পড়ল সোনার দাম। বুধবার এমসিএক্স সূচকে ১০ গ্রাম সোনার দাম ০.১১ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ৪৮,২৫০ টাকা। পড়েছে রুপোর দামও। এক কিলোগ্রাম রুপোর দর ০.৯ শতাংশ টাকা কমে হয়েছে ৭২,৫৪০ টাকা।

সম্প্রতি দাম এতটাই বেড়েছিল যে ভারতে সোনার দর তিন মাসে সর্বোচ্চ স্তরে পৌঁছে গিয়েছিল। সেখান থেকে মঙ্গলবার কিছুটা পড়েছিল। বুধবারও সেই নিম্নমুখী ধারা অব্যাহত আছে। আপাতত রেকর্ড দরের (গত বছর অগস্টে ১০ গ্রামের দাম ৫৬,২০০ টাকা) তুলনায় এখনও প্রায় ৮,০০০ টাকার মতো কম আছে হলুদ ধাতু। চলতি বছরে সোনার যাত্রা শুরু হয়েছিল ৫০,১৮০ টাকা থেকে। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন,  আপাতত এমসিএক্স সূচকে ৪৯,৪০০ টাকায় বাধা পাচ্ছে ১০ গ্রাম সোনা। আর সহায়তা মিলছে ৪৬,৩৬০ টাকায়। 

এমনিতে রিলগেরে ব্রোকিং লিমিটেডের সুগন্ধা সচদেব জানিয়েছেন, মধ্যবর্তী সময় এক কেজি রুপোর দাম ৭৫,৫০০-৭৬,০০০ টাকায় পৌঁছে যেতে পারে। দীর্ঘ সময় বা বছর শেষের মধ্যে তা ৮৫,০০০ টাকা ছুঁয়ে যেতে পারে বলে ধারণা সুগন্ধার। সোনার ক্ষেত্রে তিনি জানিয়েছেন, মধ্যবর্তী সময় ১০ গ্রাম সোনার দর ৫২,০০০ টাকায় পৌঁছে যেতে পারে। আর দীর্ঘকালীন সময় সোনার দাম পৌঁছে যেতে পারে ৫৫,০০০-৬০,০০০ টাকায়।

অন্যদিকে, বিশ্ব বাজারে সোনার দাম অবিচল আছে। এক আউন্স স্পট গোল্ডের দাম দাঁড়িয়েছে ১,৮৬৬.৫৪ ডলার। গত সেশনে দাম ১,৮৭৪.৮ ডলারে পৌঁছে গিয়েছিল। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, বুধবার মার্কিন কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের সিদ্ধান্তের দিকে তাকিয়ে আছেন লগ্নিকারীরা।  জিয়োজিতের তরফে জানানো হয়েছে, ১,৮৮০ ডলারে বাধা পাওয়ার বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ। যাতে আগামিদিনে হলুদ ধাতুর ইতিবাচক অগ্রগতি বজায় থাকে। নাহলে সোনার দরের পড়ে যেতে পারে। অন্যান্য মূল্যবান ধাতুর মধ্যে পড়েছে রুপো এবং হিরের দাম। এক আউন্স রুপোর দাম এক শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ২৭.৯৩ ডলার

বন্ধ করুন