বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সোমবারও সস্তা হল সোনা, সপ্তাহের শুরুতেই স্বস্তি দিল রুপোও
সোমবারও সস্তা হল সোনা, দাম কমল রুপোরও (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সন্তোষ কুমার/হিন্দুস্তান টাইমস)
সোমবারও সস্তা হল সোনা, দাম কমল রুপোরও (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সন্তোষ কুমার/হিন্দুস্তান টাইমস)

সোমবারও সস্তা হল সোনা, সপ্তাহের শুরুতেই স্বস্তি দিল রুপোও

  • বিশ্ব বাজারেও পড়েছে সোনা এবং রুপোর দাম।

বিশ্ব বাজারে পড়েছে সোনা এবং রুপোর দাম। তার রেশ ধরে সোমবার ভারতীয় বাজারেও দুই ধাতুর দাম কমল। সপ্তাহের প্রথম কর্মদিবসে এমসিএক্স সূচকে ১০ গ্রাম গোল্ড ফিউচার্সের দাম ০.০৮ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ৪৮,৯৫৩ টাকা। অন্যদিকে এক কেজি সিলভার ফিউচার্সের দাম ০.৩ শতাংশ টাকা কমে হয়েছে ৭১,৩০৮ টাকা।

গত সপ্তাহে অবশ্য সোনার দাম প্রায় পাঁচ মাসের সর্বোচ্চ স্তরে পৌঁছে গিয়েছিল। সেই সময় সোনার দাম উঠে গিয়েছিল ৪৯,৮০০ টাকায়। তারপর কিছুটা কমেছে দর। এমনিতে গত বছর ১০ গ্রাম সোনার দর রেকর্ড ৫৬,২০০ টাকায় পৌঁছে গিয়েছিল। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, আপাতত এমসিএক্স সূচকে ৪৮,০২০ টাকায় সহায়তা পাচ্ছে ১০ গ্রাম সোনা। বাধা পাচ্ছে ৪৯,১০০ টাকার কাছাকাছি।

বিশ্ব বাজারেও কমেছে সোনার দর। এক আউন্স স্পট গোল্ডের দাম ০.২ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ১,৮৮৬.৭৬ ডলার। অন্যান্য মূল্যবান ধাতুর মধ্যে রুপো এবং হিরের দাম অনেকটা কমেছে। এক আউন্স রুপোর দাম ০.৭ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ২৭.৫৮ ডলার। জিয়োজিতের তরফে জাননো হয়েছে, যতক্ষণ ১,৯২৫ ডলারের নীচে সমর্থন পাচ্ছে সোনা, তখন কিছুটা নেতিবাচক প্রবণতা জারি থাকবে। তবে ১,৮৪৫ ডলারে নেমে গেলে ধাক্কা খাবে সোনা। সেক্ষেত্রে একমাত্র সরাসরি ১,৯২০ ডলারের গণ্ডি পার করলে তবেই ঘুরে দাঁড়াবে হলুদ ধাতু।

সম্প্রতি রিলগেরে ব্রোকিং লিমিটেডের সুগন্ধা সচদেব জানিয়েছেন, ভারতীয় বাজারে বছরের মধ্যবর্তী সময় এক কেজি রুপোর দাম ৭৫,৫০০-৭৬,০০০ টাকায় পৌঁছে যেতে পারে। দীর্ঘ সময় বা বছর শেষের মধ্যে তা ৮৫,০০০ টাকা ছুঁয়ে যেতে পারে বলে ধারণা সুগন্ধার। সোনার ক্ষেত্রে তিনি জানিয়েছেন, মধ্যবর্তী সময় ১০ গ্রাম সোনার দর ৫২,০০০ টাকায় পৌঁছে যেতে পারে। আর দীর্ঘকালীন সময় সোনার দাম পৌঁছে যেতে পারে ৫৫,০০০-৬০,০০০ টাকায়।

বন্ধ করুন