বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > গুয়াহাটির হাসপাতালে এক রাতে মৃত্যু ১২ করোনা রোগীর
গুয়াহাটির সরকারি হাসপাতালে রাতে গড়হাজির চিকিৎসক, মৃত্যু করোনা রোগীদের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
গুয়াহাটির সরকারি হাসপাতালে রাতে গড়হাজির চিকিৎসক, মৃত্যু করোনা রোগীদের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

গুয়াহাটির হাসপাতালে এক রাতে মৃত্যু ১২ করোনা রোগীর

  • নাইট ডিউটি থাকার সত্বেও কোনও চিকিৎসককেই হাসপাতালে পাওয়া যায়নি!‌ এই ঘটনার জেরে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ১২ জন করোনা রোগীর মৃত্যু হয়েছে। চিকিৎসকদের গাফিলতির অভিযোগে হুলুস্থুল কাণ্ড ঘটে গিয়েছে ওই সরকারি হাসপাতালে।

রাতে হাসপাতালে চিকিৎসক না থাকায় একাধিক করোনা রোগীর মৃত্যুর ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল গুয়াহাটি মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে। অভিযোগ উঠেছে, চিকিৎসকদের নাইট ডিউটি থাকার সত্বেও কোনও চিকিৎসককেই হাসপাতালে পাওয়া যায়নি!‌ এই ঘটনার জেরে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ১২ জন করোনা রোগীর মৃত্যু হয়েছে। চিকিৎসকদের গাফিলতির অভিযোগে হুলুস্থুল কাণ্ড ঘটে গিয়েছে ওই সরকারি হাসপাতালে। রোগী ও তাঁদের পরিবারের অভিযোগ, রাতে কোনও চিকিৎসক হাসপাতালে উপস্থিত থাকেন না। কোনও এমারজেন্সি হলে, চিকিৎসক পাওয়া যায় না।

রোগীর চাপ থাকা সত্ত্বেও রাতে চিকিৎসকদের অনুপস্থিতির অভিযোগে বেকায়দায় পড়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ও স্বাস্থ্যমন্ত্রক। খবর পেয়ে মধ্য রাতেই ঘটনাস্থলে পৌঁছন অসমের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কেশব মহান্ত। মঙ্গলবার বিকেলে ওই হাসপাতালের চিকিৎসকদের বৈঠকেও ডাকেন তিনি।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে হাসপাতালের সুপারিন্টেন্ডেন্ট অভিজিৎ শর্মা জানিয়েছেন, মৃত ১২ জন রোগীর মধ্যে ৯ জন আশঙ্কাজনক অবস্থায় আইসিইউতে ভরতি ছিলেন। তাঁদের প্রত্যেকেই কোমর্ডিবিটি ছিল। পর্যাপ্ত পরিমাণ অক্সিজেন দেওয়ার সত্ত্বেও তাঁদের দেহে অক্সিজেনের মাত্রা বাড়েনি। এছাড়াও যে রোগীদের মৃত্যু হয়েছে, তাঁদের অক্সিজেন স্যাচুরেশন লেভেল ৯০ শতাংশেরও কম ছিল। কোনও রোগীর করোনা ভ্যাকসিন নেওয়া ছিল না।

প্রসঙ্গত, অসমে এখন সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ২৫০৪৩। এর মধ্যে প্রায় ২০০ জন রোগী গুয়াহাটি মেডিক্যাল কলেজেই ভরতি রয়েছেন।

 

বন্ধ করুন