বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > নষ্ট হয়েছে করদাতাদের ১৩৩ কোটি টাকা, অচল সংসদের দায় বিরোধীদের ঘাড়ে চাপাল কেন্দ্র
রাজ্যসভায় বিরোধীদের বিক্ষোভ (ছবি সৌজন্যে এএনআই)

নষ্ট হয়েছে করদাতাদের ১৩৩ কোটি টাকা, অচল সংসদের দায় বিরোধীদের ঘাড়ে চাপাল কেন্দ্র

  • বাদল অধিবেশন অচল থাকায় অন্তত ১৩৩ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে কেন্দ্রের তরফে।

পেগাসাস ইস্যুতে সংসদে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ প্রদর্শন জারি রেখেছেন বিরোধীদের। এই আবহে সংসদ অচল করার দোষ বিরোধীদের ঘাড়ে চাপাতে নয়া পরিসংখ্যান প্রকাশ করল কেন্দ্র। বাদল অধিবেশন অচল থাকায় অন্তত ১৩৩ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে কেন্দ্রের তরফে।

দাবি করা হয়েছে, লোকসভায় এ বার ৫৪ ঘণ্টা কার্যক্রম হতে পারত, কিন্তু মাত্র ৭ ঘণ্টা কাজ হয়েছে লোকসভায়। রাজ্যসভায় ৫৩ ঘণ্টার বদলে কাজ হয়েছে মাত্র ১১ ঘণ্টা। সব মিলিয়ে উভয় কক্ষ মিলিয়ে ১০৭ ঘণ্টার মধ্যে মাত্র ১৮ ঘণ্টা কাজ হয়েছে। এর জেরে সাধারণ করদাতাদের ১৩৩ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।

উল্লেখ্য, কয়েকদিন আগেই বিজেপির সংসদীয় দলের বৈঠকে বিরোধীদের 'দোষ' সাধারণ মানুষের সামনে তুলে ধরতে সাংসদদের নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পেগাসাস ইস্যুতে প্রথম দিন থেকেই বাদল অধিবেশন অচল করে রেখেছে বিরোধীরা। রোজই দফায় দফায় মুলতুবি হচ্ছে লোকসভা ও রাজ্যসভা। এই পরিস্থিতির মধ্যে সংসদ অচল রাখায় বিরোধীদের ভূমিকা তুলে ধরা হয়, সেই নির্দেশ দিয়েছিলেন মোদী।

এদিকে হিন্দুস্তান টাইমসের খবর অনুযায়ী, বাদল অধিবেশনের শেষ কয়েকদিন যাতে সংসদের কাজ চলতে পারে, তার জন্য বিজেপির 'ফ্লোর ম্যানেজার'রা বিরোধী নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে বসে সমাধান সূত্র বের করতে চাইছেন। আগামী কয়েকদিনের মধ্যেই সেই বৈঠক হতে পারে বলে সূত্রের খবর। এদিকে এই বিষয়ে বিরোধীদের স্পষ্ট বক্তব্য, কেন্দ্রের সঙ্গে বৈঠকে যোগ দিলেও তাঁদের দাবিতে অনড় থাকবেন তাঁরা। বৈঠকে বিরোধীদের তরফে ফের সংসদে পেগাসাস ইস্যুতে আলোচনার দাবি জানানো হবে।

বন্ধ করুন