বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > হজযাত্রা ২০২১ নিয়ে নতুন নির্দেশিকা কেন্দ্রের, অনুমতি পাবেন না ৬৫ উর্ধ্বরা
২০২১ সালে হজযাত্রার জন্য তীর্থযাত্রীদের বয়সসীমা বেঁধে দিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সরকার।
২০২১ সালে হজযাত্রার জন্য তীর্থযাত্রীদের বয়সসীমা বেঁধে দিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সরকার।

হজযাত্রা ২০২১ নিয়ে নতুন নির্দেশিকা কেন্দ্রের, অনুমতি পাবেন না ৬৫ উর্ধ্বরা

  • জযাত্রার জন্য তীর্থযাত্রীদের বয়সসীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছে ১৮ থেকে ৬৫ বছরের মধ্যে। রওনা হওয়ার ৭২ ঘণ্টা আগে প্রত্যেক পুণ্যার্থীকে অনুমোদিত পরীক্ষাগার থেকে কোভিড পরীক্ষা করাতে হবে।

হজযাত্রার জন্য তীর্থযাত্রীদের বয়সসীমা বেঁধে দিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সরকার। নতুন নিয়ম অনুসারে, ৬৫ উর্ধ্ব ব্যক্তিদের হজযাত্রায় অনুমোদন দেওয়া হবে না।

গত শনিবার কেন্দ্রীয় সরকার নয়া নির্দেশিকা জারি করলেও ২০২১ সালে কোভিড আবহে হজযাত্রীদের আদৌ প্রবেশ করতে দেবে কি না সৌদি আরব সরকার, তা স্পষ্ট নয়।

মুম্বইয়ের হজ হাউসে কেন্দ্রীয় সংখ্যালঘু সম্প্রদায় বিষয়ক মন্ত্রী মুখতার আব্বাস নকভি হজযাত্রীর নতুন নির্দেশিকা প্রকাশ করেছেন। সৌদি আরব অভিমুখী বিমান ভারতের ২১ বিমানবন্দরের পরিবর্তে এবার রওনা দেবে ১০টি বিমানবন্দর থেকে। তালিকায় রয়েছে আমদাবাদ, বেঙ্গালুরু, কোচিন, দিল্লি, গুয়াহাটি, হায়দরাবাদ, কলকাতা, লখনউ, মুম্বই ও শ্রীনগর। 

একই সঙ্গে অতিমারী পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে হজযাত্রার জন্য তীর্থযাত্রীদের বয়সসীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছে ১৮ থেকে ৬৫ বছরের মধ্যে। নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, হজে রওনা হওয়ার ৭২ ঘণ্টা আগে প্রত্যেক পুণ্যার্থীকে অনুমোদিত পরীক্ষাগার থেকে কোভিড পরীক্ষা করাতে হবে। যাত্রা শুরুর আগে জমা দিতে হবে কোভিড নেগেটিভ শংসাপত্র।

২০২১ সালের ২৬ জুন সৌদি আরবের পথে প্রথম দফায় রওনা দেবেন একদল পুণ্যার্থী, এবং সেই পথে শেষ বিমান উড়বে ওই বছরের ১৩ জুলাই। ১৪ অগস্ট থেকে তীর্থযাত্রীদের নিয়ে ভারতে ফেরার বিমান ছাড়তে শুরু করবে সৌদি আরব থেকে। এ ক্ষেত্রে শেষ উড়ান রওনা দেবে ১৪ অগস্ট ২০২১ তারিখে।

নকভি জানিয়েছেন, ২০২১ সালের হজযাত্রায় জাতীয় ও আন্তর্জাতিক যাবতীয় নিয়ম-নীতি অনুসরণ করা হবে। শারীরিক দক্ষতা, হজযাত্রীদের সংখ্যা নিয়ন্ত্রণ, সৌদি আরবে থাকার মেয়াদ, পরিবহণ ব্যবস্থা ও যাত্রীদের স্বাস্থ্যবিধি যথাযথ আরোপ করা হবে।

জানা গিয়েছে, ২০২১ সালের ১৫-১৬ মে হজযাত্রীদের কোভিড টিকা দেওয়া হবে।তবে নির্দিষ্ট কোন ভ্যাক্সিন সে ক্ষেত্রে প্রয়োগ করা হবে, তা স্পষ্ট বলা হয়নি নির্দেশিকায়। 

কেন্দ্রীয় নির্দেশিকা অনুযায়ী, ‘মেহরাম’ বা পুরুষ সঙ্গী ছাড়াও মহিলা হজযাত্রীরা সৌদি আরব সফরের জন্য আবেদন করতে পারবেন। উল্লেখ্য, ২০২০ সালে এই পর্যায়ে ২,৩০০ মহিলা আবেদন করেছিলেন। 

২০২১ সালের হজযাত্রার জন্য আবেদন করতে হবে আগামী ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে। আবেদনপত্র অনলাইনে পাঠানো যাবে বা সরকারি হজ মোবাইল অ্যাপ-এর মাধ্যমেও জমা দেওয়া যাবে।

বন্ধ করুন