বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বেশিরভাগ হিন্দু সহনশীল, ভারত কোনওদিন আফগানিস্তান হবে না, মন্তব্য জাভেদ আখতারের
জাভেদ আখতার. (HT archive) (ফাইল ছবি)
জাভেদ আখতার. (HT archive) (ফাইল ছবি)

বেশিরভাগ হিন্দু সহনশীল, ভারত কোনওদিন আফগানিস্তান হবে না, মন্তব্য জাভেদ আখতারের

  • সম্প্রতি একটি টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে জাভেদ আখতার জানিয়েছিলেন, ঠিক যেমন তালিবানরা একটি ইসলামিক রাষ্ট্র চায়, ঠিক তেমন কিছু লোকজন হিন্দুরাষ্ট্র চান।

হিন্দুরা হচ্ছে গোটা পৃথিবীর মধ্যে সবথেকে শোভনীয় ও সহনশীল। শিবসেনার মুখপত্র সামনাতে একথা লিখেছেন বিখ্যাত গীতিকার ও চিত্রনাট্যকার জাভেদ আখতার। মঙ্গলবারই ওই প্রবন্ধটি প্রকাশিত হয়েছে। এদিকে তাৎপর্যপূর্ণভাবে যখন তাঁর একটি মন্তব্যকে ঘিরে বিভিন্ন স্তরে সমালোচনার ঝড় উঠেছে তখনই সামনে এল তাঁর এই প্রবন্ধ। প্রসঙ্গত সম্প্রতি তিনি কার্যত আরএসএস, বিশ্ব হিন্দু পরিষদের সঙ্গে তালিবানকে এক আসনে বসিয়েছিলেন।জাভেদ আখতার তাঁর প্রবন্ধে উল্লেখ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের চরম সমালোচকও বলতে পারবেন না যে তিনি কোনও বিভেদ তৈরি করেন।

এদিকে সম্প্রতি একটি টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে জাভেদ আখতার জানিয়েছিলেন, ‘ঠিক যেমন তালিবানরা একটি ইসলামিক রাষ্ট্র চায়, ঠিক তেমন কিছু লোকজন হিন্দুরাষ্ট্র চান। সেই মানুষগুলো মুসলিম, খ্রীস্টান, ইহুদি, হিন্দু যেই হোন না কেন মানসিকতার দিক থেকে তারা সকলেই সমান।’ তিনি জানিয়েছিলেন, ‘তালিবানরা বর্বর এটা ঠিকই। কিন্তু আরএসএস, ভিএইচপি, বজরঙ দলকে যারা সমর্থন করে তারাও সব একই ধরনের।’ এদিকে গত ৬ই সেপ্টেম্বর সামনাতে একটি সম্পাদকীয় প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়েছিল যেখানে আখতারের মন্তব্যের মৃদু সমালোচনা করা হয়।  আরএসএস, ভিএইচপির সঙ্গে যারা যুক্ত আছেন তাদেরকে তালিবানের সঙ্গে তুলনা করা হিন্দু সংস্কৃতির কাছে অমর্যাদাকর বলে সেখানে উল্লেখ করা হয়।

 

এদিকে আখতার প্রবন্ধে জানিয়েছেন, ‘অনেক সমালোচনা শুনতে হচ্ছে আমাকে। নিবন্ধের মাধ্যমে তার জবাব দিতে চাইছি। আমি সাক্ষাৎকারে বলেছি বেশিরভাগ হিন্দু শোভনীয় ও সহনশীল, গোটা পৃথিবীর মধ্যে। আমি এটাও বার বার বলেছি ভারত কখনও আফগানিস্তান হবে না। কারণ ভারতবাসী প্রকৃতিগতভাবে মৌলবাদী নন। তাদের ডিএনএর মধ্যেই ভারসাম্য বজায় রাখার গুণ আছে।’ তবে আগের অবস্থানে তিনি অনড়। তিনি বলেন, ‘দক্ষিণপন্থী কিছু তত্ত্বের সঙ্গে তালিবানি মানসিকতার মিল আছে। এই কথায় অনেকে রেগে গেলেও বাস্তব সত্যটা কিন্তু এটাই।’  

 

বন্ধ করুন