বাড়ি > ঘরে বাইরে > একে-৪৭ থেকে গ্রেনেড, নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে কাশ্মীরে উদ্ধার প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র
নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে কাশ্মীরে উদ্ধার প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে কাশ্মীরে উদ্ধার প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)

একে-৪৭ থেকে গ্রেনেড, নিয়ন্ত্রণ রেখার কাছে কাশ্মীরে উদ্ধার প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র

  • লস্কর-ই-তইবাকে সাহায্য প্রদানকারী এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে নিরাপত্তা বাহিনীর একটি যৌথ দল।

নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর উত্তর কাশ্মীরের কেরান সেক্টর থেকে প্রচুর পরিমাণে অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে। জানাল জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশ।

বিশস্ত সূত্রে খবর পেয়ে নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর কেরান গ্রাম এবং সংলগ্ন এলাকায় যৌথ অভিযান শুরু করে কুপওয়ারা পুলিশ এবং ভারতীয় সেনার ৬ নম্বর রাষ্ট্রীয় রাইফেলস।কাশ্মীরে জোনের আইজি বিজয় কুমার জানান, একটি জায়গায় প্রচুর অস্ত্র জড়ো করা ছিল। সেখান থেকে পাঁচটি একে-৪৭ রাইফেল, ১৫ টি একে ম্যাগাজিন, ৪৪৩ রাউন্ড গুলি, দুটি আন্ডার ব্যারেল গ্রেনেড লঞ্চার, ৫৭ টি আন্ডার ব্যারেল গ্রেনেড লঞ্চারের গ্রেনেড, ছ'টি নাইন এমএম পিস্তল, ১২ টি নাইন এমএম পিস্তলের ম্যাগাজিন, ৭৭ টি নাইন এমএম পিস্তল রাউন্ড, ১৫ টি হ্যান্ড গ্রেনেড এবং দুটি একে স্লিং উদ্ধার করা হয়েছে।

কাশ্মীরে জোনের আইজি বলেন, ‘কুপওয়ারায় মোতায়েন নিরাপত্তা বাহিনীর এই যৌথ অভিযানে পাকিস্তানের সন্ত্রাসবাদী সংগঠনগুলির উপত্য়কায় অবৈধ অস্ত্র পাচার এবং সন্ত্রাসবাদ ছড়ানোর জঘন্য নকশা ব্যর্থ হয়েছে।’ একটি মামলা রুজু করে তদন্ত চালাচ্ছে পুলিশ।

এদিকে, লস্কর-ই-তইবাকে সাহায্য প্রদানকারী এক ব্যক্তিকে বারামুল্লা থেকে গ্রেফতার করেছে নিরাপত্তা বাহিনীর একটি যৌথ দল। ইরফান আহমেদ ওয়ানি নামে ওই ওভার গ্রাউন্ড ওয়ার্কারের বাড়ি শাতলু রাফিয়াবাদে। তার থেকে একটি চিনা পিস্তল, একটি ম্য়াগাজিন, চার রাউন্ড গুলি এবং একটি গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

বন্ধ করুন