বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > জানি না, কংগ্রেসে কে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন?ফের নেতৃত্বের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন সিব্বলের
কংগ্রেস নেতা কপিল সিব্বল (PTI) (HT_PRINT)
কংগ্রেস নেতা কপিল সিব্বল (PTI) (HT_PRINT)

জানি না, কংগ্রেসে কে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন?ফের নেতৃত্বের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন সিব্বলের

  • এবার সিধুর মানসিক স্থিরতা নিয়ে নয়, কংগ্রেসের পরিস্থিতি নিয়েই বড় প্রশ্ন তুলে দিলেন প্রবীন কংগ্রেস নেতা কপিল সিব্বল।

পঞ্জাবের রাজনৈতিক আকাশে বার বার কালো মেঘ। আর এই মেঘই ভাবাচ্ছে কংগ্রেসকে। মঙ্গলবারই প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন নভজোৎ সিং সিধু। সোনিয়া গান্ধীকে চিঠি দিয়েও তিনি বিষয়টি জানিয়েছেন। তার কিছুদিন আগেই পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছিলেন ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। এদিন আবার তিনি অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করেছেন। সিধুর পদত্যাগ নিয়েও মুখ খুলেছিলেন অমরিন্দর। তিনি জানিয়েছিলেন, ‘আমি আগেই বলেছিলাম, ওঁর মানসিক স্থিরতা নেই। সীমান্ত রাজ্য পঞ্জাবের জন্য সিধু উপযুক্ত নন।’ 

তবে এবার সিধুর মানসিক স্থিরতা নিয়ে নয়, কংগ্রেসের পরিস্থিতি নিয়েই বড় প্রশ্ন তুলে দিলেন প্রবীন কংগ্রেস নেতা কপিল সিব্বল। তিনি বলেন, ‘কংগ্রেসে কোনও মনোনীত সভাপতি নেই। আমরা জানি না কে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন?’ এখানেই থেমে থাকেননি তিনি। কপিল সিব্বল বলেন, ‘মানুষজন দল ছাড়ছেন? এখানে কি আমাদের কোনও ভুল রয়েছে? বিষয়টি আমাদের খতিয়ে দেখা উচিৎ। শীর্ষ নেতৃত্ব যাঁদের ঘনিষ্ঠ বলে মনে করছেন, তাঁরা দল ছেড়ে দিচ্ছেন আর যাঁদের খুব একটা ঘনিষ্ঠ বলে মনে করা হচ্ছে না, তাঁরা দলে থেকে যাচ্ছেন। ’কার্যত কংগ্রেসের বর্তমান নেতৃত্বেকে নিশানা করেই চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন কপিল সিব্বল। 

আসলে বার বার নানা ব্যর্থতার জেরে দলের নেতৃত্বের ভূমিকা নিয়ে আগেই প্রশ্ন উঠছিল। এমনকী গত লোকসভা নির্বাচনের পর নেতৃত্ব বদলের ডাকও উঠেছিল। কিন্তু গান্ধী পরিবারের হাত থেকে সেই ক্ষমতার ব্যাটন অন্য কোথাও যায়নি। সেক্ষেত্রে বর্তমান নেতৃত্বে দল কতটা ঘুরে দাঁড়াতে পারবে তা নিয়ে দলের প্রবীন নেতৃত্বই সংশয় প্রকাশ করছেন।

 

বন্ধ করুন