বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বিচার ব্যবস্থাকে সর্বোচ্চ মর্যাদা দিয়ে থাকি, ভিডিও ভাইরাল হতেই দাবি বিপ্লব দেবের
বিপ্লব দেব (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
বিপ্লব দেব (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

বিচার ব্যবস্থাকে সর্বোচ্চ মর্যাদা দিয়ে থাকি, ভিডিও ভাইরাল হতেই দাবি বিপ্লব দেবের

  • ইতিমধ্যেই এনিয়ে ত্রিপুরার রাজনীতিতে জলঘোলা শুরু হয়ে গিয়েছে।

রবিবার তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্য়ায় ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের ভাষণের একটি ক্লিপ টুইট করেছিলেন। আর সেখানে বিপ্লব দেবের বক্তব্য়কে ঘিরে তুমুল শোরগোল। সেই ভিডিও অনুসারে দাবি করা হচ্ছে যে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বলছিলেন, আদালত অবমাননার বিষয়টি এমনভাবে বলা হয় যেন বাঘ বসে রয়েছে। আমি টাইগার। যারা সরকার চালায় তাদের হাতেই ক্ষমতা থাকে। তার মানে সব খবর জনতার সঙ্গে থাকে। আমরা জনতার সরকার, আদালতের সরকার নয়। পাশাপাশি সিভিল সার্ভিস অফিসার্স অ্য়াসোসিয়েশনের সভায় তিনি আদালত অবমাননা নিয়ে অত না ভেবে সরকারি আধিকারিকদের মানুষের জন্য কাজ করা উচিত  বলে মন্তব্য করেছিলেন। এমনটাই দাবি করা হচ্ছে। এদিকে এরপরই তাঁর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করার অভিযোগ উঠেছে। তবে মুখ্যমন্ত্রীর দাবি, তাঁর বক্তব্যকে বিকৃত করা হয়েছে।

ফেসবুকে বিপ্লব দেব লিখেছেন, বিভিন্ন মিডিয়াতে আমার বক্তব্যকে বিকৃত ও ভুলভাবে পরিবেশন করা হয়েছে। আমি বিচারব্যবস্থাকে সর্বোচ্চ মর্যাদা দিয়ে থাকি। আদালতকে অসম্মান করে কোনও বার্তা আমি আধিকারিকদের দিই নি। যেটা কোনও প্রসঙ্গ ছাড়়াই প্রকাশ করা হয়েছে।

এদিকে ইতিমধ্যেই এনিয়ে ত্রিপুরার রাজনীতিতে জলঘোলা শুরু হয়ে গিয়েছে। সমাজকর্মী সাকেত গোখলে যিনি সম্প্রতি তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন তিনি বিপ্লব দেবের বিরুদ্ধে ইতিমধ্যেই সরব হয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি তিনি তুলেছেন। তিনি লিখেছেন, কোনও নাগরিক এমনকী মুখ্যমন্ত্রীও আইনের উর্ধে নন। 

 

বন্ধ করুন