বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > লাদাখের পরিস্থিতিকে তখনই স্বাভাবিক বলা যাবে যখন…জানালেন বায়ুসেনা প্রধান

লাদাখের পরিস্থিতিকে তখনই স্বাভাবিক বলা যাবে যখন…জানালেন বায়ুসেনা প্রধান

লাদাখ সেক্টর. (File) (HT_PRINT)

সেই ২০২০ সাল থেকে ভারত ও চিন একটি অশান্তির আবহের মধ্যে রয়েছে সীমান্তে। বেজিং সীমান্তের নিয়মকে লঙ্ঘন করেছে বলে অভিযোগ। ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর আগেই জানিয়েছিলেন, সীমান্তে শান্তি ও স্থিরতা বজায় না থাকলে দুটি দেশের মধ্য়ে সার্বিক সম্পর্ক কখনও স্বাভাবিক হবে না ।

লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখার পরিস্থিতি তখনই স্বাভাবিক বলা যাবে যখন সমস্ত সংকটের জায়গা থেকে চিনের বাহিনীকে তুলে নেওয়া হবে। ভারতীয় বায়ুসেনার চিফ মঙ্গলবার একথা জানিয়ে দিলেন।

এয়ার চিফ মার্শাল ভিআর চৌধুরী বার্ষিক নিউজ কনফারেন্সে জানিয়েছেন, সীমান্তে চিন কী করছে তার উপর নিরন্তর নজর রাখা হচ্ছে। এরসঙ্গেই তিনি জানিয়েছেন, সম্প্রতি আকাশে আরও সক্রিয় হয়েছে চিন। এমনকী আকাশে নিয়ম লঙ্ঘনও হয়েছে। সেক্ষেত্রে নিজেদের প্রতিরক্ষা আরও বৃদ্ধি করে গোটা পরিস্থিতির উপর নজর রাখা হচ্ছে।রাডারের সংখ্যাও বৃদ্ধি করা হচ্ছে।

এদিকে সম্প্রতি চিনের দূত সান ওয়েডং জানিয়েছিলেন, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখার পরিস্থিতি স্থিতিশীল। পাশাপাশি দুই দেশ এমার্জেন্সি রেসপন্স থেকে বেরিয়ে এসেছে বলেও তিনি জানিয়েছিলেন। গালওয়ান সংঘর্ষের কথাও উল্লেখ করেছিলেন তিনি। তবে ভারতের বায়ুসেনার চিফ অবশ্য় প্রকৃত অবস্থাটা তুলে ধরেন।

এদিকে সেই ২০২০ সাল থেকে ভারত ও চিন একটি অশান্তির আবহের মধ্যে রয়েছে সীমান্তে। বেজিং সীমান্তের নিয়মকে লঙ্ঘন করেছে বলে অভিযোগ। ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর আগেই জানিয়েছিলেন, সীমান্তে শান্তি ও স্থিরতা বজায় না থাকলে দুটি দেশের মধ্য়ে সার্বিক সম্পর্ক কখনও স্বাভাবিক হবে না ।

বন্ধ করুন