বাড়ি > ঘরে বাইরে > বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রীকে ফোন জয়শংকরের, শীঘ্রই ভার্চুয়াল বৈঠকে বসবে দুই দেশ
প্রতীকী ছবি
প্রতীকী ছবি

বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রীকে ফোন জয়শংকরের, শীঘ্রই ভার্চুয়াল বৈঠকে বসবে দুই দেশ

  • জানা গিয়েছে, এই দুই দেশের প্রতিনিধি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে JCC‌–র বৈঠকে মূলত কোভিড মহামারী নিয়েই আলোচনা করবেন।

দু’‌দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক পর্যালোচনার খাতিরে খুব শীঘ্রই ভার্চুয়াল বৈঠক বসতে চলেছে ভারত ও বাংলাদেশ। জানা গিয়েছে, চলতি মাস অর্থাৎ সেপ্টেম্বরের শেষের দিকে প্রতিবেশী দুই দেশ তাদের যৌথ পরামর্শক কমিশনের (‌JCC) বৈঠক করবে।

ফোনে আলাপচারিতার মাধ্যমেই বৈঠকের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকর ও বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন। জয়শংকর টুইট করে জানিয়েছেন, এই বৈঠকের ব্যাপারে দু’‌পক্ষই আগ্রহী। যৌথ পরামর্শক কমিশনের এই বৈঠক খুব শীঘ্রই আয়োজন করা হবে। যদিও এ ব্যাপারে কোনও তথ্য দিতে পারেনি ভারতের বিদেশমন্ত্রক।

গোপন সূত্র থেকে জানা গিয়েছে, এই দুই দেশের প্রতিনিধি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে JCC‌–র বৈঠকে মূলত কোভিড মহামারী নিয়েই আলোচনা করবেন। যদিও রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের একাংশের অনুমান, লাদাখ পরিস্থিতিতে চীনের ওপর চাপ সৃষ্টি করতেই তড়িঘড়ি বৈঠকের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ভারত ও বাংলাদেশ।

ফোনে দুই বিদেশমন্ত্রী দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগের ব্যবস্থার উন্নয়নের ব্যাপারে কথা বলেন। ৫ সেপ্টেম্বর পরীক্ষামূলকভাবে বাংলাদেশের দাউদকান্তি থেকে ভারতের জাতীয় নৌপথ ধরে ত্রিপুরার সোনামুড়ায় এসে পৌঁছয় সিমেন্ট–বোঝাই জলযান। জলপথে এই ব্যবসায়িক লেনদেন আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ব্যাপারেও আলোচনা করেন দুই মন্ত্রী।

গত বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে শেষবার JCC বৈঠক আয়োজিত হয় ভারতের রাজধানী দিল্লীতে। সেই সময় বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠক করেন ভারতের তৎকালীন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। তখন দুই দেশের মধ্যে বহুমুখী সহযোগিতা জোরদার করার জন্য চারটি সমঝোতা স্মারক বা মউ (MoU) স্বাক্ষরিত হয়। তার মধ্যে ছিল বাংলাদেশের ১৮০০ সরকারি কর্মীর প্রশিক্ষণ, ঔষধি গাছের ক্ষেত্রে ভারতের ‌‘‌আয়ুশ’‌ এবং বাংলাদেশের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের মধ্যে সহযোগিতা, দুর্নীতি দমনে ভারতের সিবিআই ও বাংলাদেশের এসিসি–র যৌথ কার্যকলাপের সমঝোতাও।

বন্ধ করুন