বেনাপোল সীমান্ত দ্বার। ফাইল ছবি
বেনাপোল সীমান্ত দ্বার। ফাইল ছবি

শুক্রবার বিকেলের পর থেকে বাংলাদেশিদের ভারতে প্রবেশ নিষিদ্ধ, বাতিল হল বহু বিমান

  • তবে বাংলাদেশের তরফে ভারতীয়দের সেদেশে প্রবেশে কোনও নিষেধাজ্ঞা জারি হয়নি।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রুখতে বুধবারই বিদেশিদের যাবতীয় ভিসা বাতিল করেছে ভারত সরকার। এর ফলে বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে ভারতে ঢুকতে পারবেন না কোনও বিদেশি নাগরিক। আর এর সব থেকে বড় কোপ পড়তে চলেছে বাংলাদেশিদের ওপর। বিদেশমন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে শুক্রবার বিকেল ৫টার পর বন্ধ করে দেওয়া হবে বাংলাদেশিদের প্রবেশ। পেট্রাপোলসহ সমস্ত প্রবেশপথ বন্ধ থাকবে অন্তত ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত। ভারতে বিদেশিদের প্রবেশাধিকার বন্ধ হওয়ার নির্দেশ জারি হওয়ার পর ভারতের সমস্ত বিমান বাতিল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশি বিমানসংস্থাগুলি।

তবে বাংলাদেশের তরফে ভারতীয়দের সেদেশে প্রবেশে কোনও নিষেধাজ্ঞা জারি হয়নি। ভারতীয় পাসপোর্টধারী যে কেউ সীমান্ত পেরিয়ে উপযুক্ত ভিসার মাধ্যমে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে পারেন বলে জানিয়েছে সেদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রক।

বাংলাদেশিদের ভারতে প্রবেশ বন্ধ হওয়ায় বিশাল ক্ষতির আশঙ্কা করছেন বাস মালিক ও বৈদেশিক মুদ্রা বিনিময়কারীরা। ১ মাসের বেশি সময় ব্যবসা বন্ধ থাকলে কয়েকশ কোটি টাকা ক্ষতির আশঙ্কা করছেন তাঁরা। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার আশায় এখন বসে রয়েছেন ব্যবসায়ীরা।

করোনাভাইরাস রোধে বুধবার রাতে একগুচ্ছ গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে ভারত সরকার। মন্ত্রকের তরফে জারি বিবৃতিতে বলা হয়েছে, সমস্ত বিদেশির ভিসা বাতিলের সিদ্ধান্ত হয়েছে। সঙ্গে বিদেশ থেকে কোনও ভারতীয় দেশে ফিরলে তাঁকে ১৪ দিন ঘেরাটোপে থাকতে হবে।


বন্ধ করুন