বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সীমান্তে ভারী ট্রাক যাতায়াতের জন্য চালু হল ৪৪ নয়া সেতু, প্রায় প্রস্তুত আরও ৫৮
ভার্চুয়াল উদ্বোধন সেতুর
ভার্চুয়াল উদ্বোধন সেতুর

সীমান্তে ভারী ট্রাক যাতায়াতের জন্য চালু হল ৪৪ নয়া সেতু, প্রায় প্রস্তুত আরও ৫৮

  • সেতুগুলির উদ্বোধন করলেন রাজনাথ সিং। 

বর্ডার রোডস অর্গানাইজেশনের (বিআরও) দ্বারা প্রস্তুত ৪৪টি সেতুর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং। বর্তমানে ১০২টি সেতু তৈরি করছে বিআরও। সাঁজোয়া গাড়ি যাতে সহজেই যেতে পারে, সেভাবেই তৈরি করা হয়েছে এই সেতুগুলিকে।

সূত্রের খবর, সোমবার যে ৪৪টি সেতুর উদ্বোধন করা হল তার মধ্যে ৩০টি হল প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর লাদাখ থেকে অরুণাচল প্রদেশ অবধি। এগুলি ৭০ টন গাড়ির ওজন বহন করতে পারে। ভারতের সবচেয়ে ভারি সাঁজোয়া গাড়ি অর্জুনের ওজন ৬০ টন। পূর্ব লাদাখে আপাতত যে ভীষ্ম ট্যাঙ্ক আছে, সেগুলির ওজন ৪৫ টন। দ্রুত যাতে সেনাবাহিনীর কাছে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র পৌঁছতে পারে, সেটিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে এই সেতুগুলি। 

আগে বছরে গড়ে ৫০টি ব্রিজ তৈরী করত বিআরও। এখন সেটি বাড়িয়ে ১০২টি ব্রিজ করা হয়েছে। চিন যেভাবে সীমান্তে পরিকাঠামো বৃদ্ধি করেছে সেখানে অনেকটাই পিছিয়ে ভারত। সেই কারণে এখন টার্গেট বাড়ানো হয়েছে। আগে বিআরও-কে বাৎসরিক ৩৩০০-৪৬০০ কোটি টাকা দেওয়া হত। সেটি বৃৃদ্ধি করে ১১ হাজার কোটি করা হয়েছে। 

এদিন রাজনাথ সিংয়ের তরফ থেকে বিআরও এবং সংস্থার প্রধান লেফট্যানেন্ট জেনারেল হরপাল সিংয়ের ভূয়সী প্রশংসা করা হয়। হরপাল জানান বছরের শুরুতেই ১০টি ব্রিজ তৈরি হয়ে গিয়েছে। এখন আরও ৪৪টি জনগণের জন্য খুলে দেওয়া হল। এর মধ্যে অধিকাংশই উত্তর ভারতে। অরুণাচলে আটটি ও সিকিমে চারটি ব্রিজ আছে। 

৩০ মিটার থেকে ৪৮৪ মিটার অবধি লম্বা এই ব্রিজগুলি সামরিক ও অসামরিক উভয় ক্ষেত্রেই লাভজনক হবে বলে জানান হরপাল সিং। তবে কিছু ক্ষেত্রে ৩০ মিটারের সেতু তৈরী করতে সেনাকে অনেক বেশি বেগ পেতে হয় বলেও জানান বিআরও প্রধান। 

বন্ধ করুন