জয়পুর সাহিত্য উৎসবে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় (ছবি সৌজন্য এএনআই)
জয়পুর সাহিত্য উৎসবে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় (ছবি সৌজন্য এএনআই)

ভারতে আরও শক্তিশালী বিরোধী প্রয়োজন, বললেন নোবেলজয়ী অভিজিৎ

  • অভিজিৎবাবুর মতে, ভারতের ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্রের উপর যথেষ্ট চাপ রয়েছে। সেখান থেকে ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্রকে টেনে বের করার মতো জায়গায় নেই সরকার।

ভারতে আরও শক্তিশালী বিরোধী প্রয়োজন। তা যে কোনও গণতান্ত্রিক দেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। রবিরার একথা বললেন নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়।

জয়পুর সাহিত্য উৎসবের আলোচনাচক্রে প্রেসিডেন্টের প্রাক্তনী জানান, স্বৈরতন্ত্র ও অর্থনৈতিক সাফল্যের মধ্যে কোনও পারস্পরিক সম্পর্ক নেই। সিঙ্গাপুরের উদাহরণ দিয়ে অভিজিৎবাবু বলেন, 'আপনারা বলতেই পারেন সিঙ্গাপুরে একনায়ক ছিলেন ও সহজেই ফিরে আসতে পারেন। জিম্বাবোয়ের বিষয়ে আলোচনা করুন। আমরা এই বিরক্তিকর বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে পারি। তবে একটা পর্যায়ে স্বৈরতন্ত্র একটি বিভ্রম।'

অভিজিৎবাবুর মতে, ভারতে বিরোধীদের আরও উন্নতির প্রয়োজন। তাঁর কথায়, 'ভারতের আরও ভালো বিরোধী দরকার। গণতন্ত্রের হৃদপিণ্ড হলেন বিরোধীরা। নিজেদের ঠিক রাখার জন্য শাসক দলেরও ভালো বিরোধী চাওয়া উচিত।'

পাশাপাশি অভিজিৎবাবু জানান, ভারতের ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্রের অবস্থা একেবারেই ভালো নয়। তার উপর যথেষ্ট চাপ রয়েছে। কিন্তু সেই অবস্থা থেকে ব্যাঙ্কিং ক্ষেত্রকে বের করে আনার মতো জায়গায় নেই সরকার। নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ বলেন, 'আমরা এটাও জানি যে অর্থনীতিতে চাহিদা কম হওয়ায় দু-চাকার গাড়ি বিক্রি হচ্ছে না। অর্থনীতির যে দ্রুত বৃদ্ধি হবে এমন ধারণার উপর থেকে মানুষের ভরসা কমে যাওয়ার ইঙ্গিত এগুলি। তাই তাঁরা টাকা খরচ করছেন না, সঞ্চয় করছেন।'



বন্ধ করুন