বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ভারত- চিন ভার্চুয়াল বৈঠক, পরবর্তী পদক্ষেপ নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত
ভুটানের সঙ্গে বিতর্কিত সীমান্ত এলাকার কাছাকাছি চিন অন্তত চারটি গ্রাম তৈরি করেছে, এমনটাই দেখা গিয়েছে উপগ্রহ চিত্রে, দাবি করা হচ্ছে বিভিন্ন মহলের তরফে। (TWITTER/@detresfa_) (HT_PRINT)
ভুটানের সঙ্গে বিতর্কিত সীমান্ত এলাকার কাছাকাছি চিন অন্তত চারটি গ্রাম তৈরি করেছে, এমনটাই দেখা গিয়েছে উপগ্রহ চিত্রে, দাবি করা হচ্ছে বিভিন্ন মহলের তরফে। (TWITTER/@detresfa_) (HT_PRINT)

ভারত- চিন ভার্চুয়াল বৈঠক, পরবর্তী পদক্ষেপ নিয়ে বড় সিদ্ধান্ত

  • গত ১০ই অক্টোবরও দু দেশের মধ্যে সামরিকস্তরে আলোচনা হয়েছিল। কিন্তু সেই বৈঠক শেষ পর্যন্ত ফলপ্রসূ হয়নি। সেই সময় চিন দাবি করেছিল দিল্লি অযৌক্তিক ও অবাস্তব দাবি করছে।

সীমান্ত সমস্যা নিয়ে চিন ও ভারতের মধ্যে স্নায়ুর চাপ থেকেই গিয়েছে। এসবের মধ্য়েই লাদাখ সেক্টরের সীমান্ত সমস্যা নিয়ে চিন ও ভারত উভয়ই বৃহস্পতিবার কূটনৈতিকস্তরে আলোচনায় চালাল। তবে আপাতত সিদ্ধান্ত হয়েছে সিনিয়র মিলিটারি কমান্ডাররা খুব শীঘ্রই নিজেদের মধ্যে আলোচনায় বসবেন। সীমান্ত পরিস্থিতি নিয়ে দুই দেশ এদিন ভার্চুয়াল মিটিংয়ে বসে। Working Mechanism for Consultation and co ordination (WMCC) শীর্ষক এই বৈঠকে একাধিক বিষয় উঠে এসেছে। চিন সীমান্তে পরিকাঠামো বৃদ্ধি ও গ্রাম তৈরি নিয়ে যে বিতর্ক দানা বেঁধেছে সেই ঘটনাকে নেপথ্যে রেখেই এদিন আলোচনায় মিলিত হয়েছিল দুই দেশ। 

বৈঠকের পর বিদেশ মন্ত্রকের তরফে বিবৃতি পেশ করে জানানো হয়েছে, দুপক্ষই একটা বিষয়ে একমত হয়েছে যে দুপক্ষের সিনিয়র কমান্ডাররা শীঘ্রই আলোচনায় মিলিত হবেন। অন্যদিকে চিনের বিদেশ মন্ত্রকের তরফে বিবৃতি জারি করে বলা হয়েছে, কূটনৈতিক ও সামরিক চ্যানেলে দুপক্ষের মধ্যে বার্তা বিনিময় করা হবে। মিলিটারি কমান্ডার স্তরে সেই বৈঠকের জন্য প্রস্তুতি চলছে। যে সমস্যাগুলি এখনও থেকে গিয়েছে সেগুলি মেটানোর ব্যাপারে চেষ্টা চলছে। এদিকে দুপক্ষই জানিয়েছে আলোচনার মধ্যে এদিন গভীরতা ছিল। 

 এদিকে চিনের তরফেও জানানো হয়েছে সীমান্ত সমস্যা মেটাতে উভয়ই চেষ্টা চালাচ্ছে। ভারতের তরফে জানানো হয়েছে, ভারত ও চিনের বিদেশমন্ত্রকের তরফে আগেই সিদ্ধান্ত হয়েছিল প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখায় সমস্যা মেটাতে কূটনৈতিক ও সামরিকস্তরে আলোচনা জারি থাকবে। সেটাই আরও একবার মনে করিয়ে দেওয়া হয়েছে এদিনের বৈঠকে।অন্যদিকে গত ১০ই অক্টোবরও দু দেশের মধ্যে সামরিকস্তরে আলোচনা হয়েছিল। কিন্তু সেই বৈঠক শেষ পর্যন্ত ফলপ্রসূ হয়নি। সেই সময় চিন দাবি করেছিল দিল্লি অযৌক্তিক ও অবাস্তব দাবি করছে। 

 

বন্ধ করুন