বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > India-US Higher Education: ভার্চুয়াল মাধ্যমে হাত ধরবে ভারত-মার্কিন বিশ্ববিদ্যালয়, দিশা দেখালেন মোদী-বাইডেন

India-US Higher Education: ভার্চুয়াল মাধ্যমে হাত ধরবে ভারত-মার্কিন বিশ্ববিদ্যালয়, দিশা দেখালেন মোদী-বাইডেন

নরেন্দ্র মোদীর কাঁধে হাত জো বাইডেনের। (ছবি সৌজন্যে পিটিআই)

উচ্চশিক্ষার অগ্রগতি ও গবেষণার ক্ষেত্রে এবার হাত মেলাচ্ছে ভারত ও মার্কিন শিক্ষাঙ্গন।মোদী-বাইডেন মিটিংয়ে বড় দিশা। 

ফারিয়া ইফতিকার

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দুপক্ষের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক মিটিংয়ের পরে যৌথ বিবৃতি জারি করা হয়েছে। ভারতীয় বিশ্ববিদ্যালয়গুলির মধ্যে মউ স্বাক্ষর করা নিয়ে তাঁরা যৌথ বিবৃতি জারি করেছেন। 

মূলত উচ্চশিক্ষার অগ্রগতি ও গবেষণার ক্ষেত্রে এবার হাত মেলাচ্ছে ভারত ও মার্কিন শিক্ষাঙ্গন। ভারত-মার্কিন গ্লোবাল চ্যালেঞ্জেস ইনস্টিটিউট তৈরি নিয়ে কাউন্সিল অফ ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউটস অফ টেকনোলজি ও অ্যাসোসিয়েশন অফ আমেরিকান ইউনিভার্সিটিসের মধ্যে এই পারস্পরিক মেলবন্ধন তৈরি হয়েছে। এই মেলবন্ধনের মাধ্যমে ভারতের পড়ুয়াদের ঠিক কী সুবিধা হতে পারে? 

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির নতুন আবিষ্কার, কৃষিক্ষেত্রে নতুন দিশা দেখানো, স্বাস্থ্য ও অতিমারির প্রস্তুতির ক্ষেত্রে নয়া ব্যবস্থা তৈরি করা, সেমিকন্ডাক্টর প্রযুক্তি ও তার ব্যবহার, টেলিকমিউনিকেশনস, আর্টিফিসিয়াল ইনটেলিজেন্স ও কোয়ান্টাম সায়েন্সের উপর নতুন করে অগ্রগতি ও পারস্পরিক মতামতের আদানপ্রদানের কাজ হবে। 

আইআইটি ডিরেক্টর অভয় করনদিকর এই ইনস্টিটিউটের অন্যতম দায়িত্বে রয়েছেন।এই নয়া ইনস্টিটিউট মূলত ভার্চুয়াল মাধ্যমে কাজ করবে। দুদেশের সমণ্বয়ের জন্য় একটা ম্যানেজমেন্ট অফিস থাকবে। সেক্রেটারিয়েটও থাকবে। যে সমস্ত ইনস্টিটিউট এই নয়া ইনস্টিটিউটের মধ্য়ে যোগ দেবে তাদের ক্যাম্পাসেই প্রয়োজনীয় গবেষণার কাজ হবে। 

আইআইটি ডিরেক্টর অভয় করনদিকর সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন, সামনের দিনগুলিতে আমরা মাল্টি ইনস্টিটিউশনাল রিসার্চ প্রজেক্ট তৈরি করব। দুদেশের উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে নিয়োজিত প্রতিষ্ঠানগুলি এতে শরিক হতে পারবে। 

তিনি জানিয়েছেন, এটা শুধু আইআইটির মধ্য়ে সীমাবদ্ধ থাকবে না। আগামী বছরগুলিতে একাধিক গবেষণামূলক কর্মসূচি এই প্রকল্পের আওতায় থাকবে। এর নির্দিষ্ট একটি লক্ষ্যও ঠিক করা থাকবে। কিন্তু এবার প্রশ্ন এই ইনস্টিটিউট চালানোর ক্ষেত্রে অর্থের যোগানটা কীভাবে আসবে? 

এব্যাপারে আইআইটি ডিরেক্টর অভয় করনদিকর জানিয়েছেন, প্রাথমিকভাবে ১০ মিলিয়ন ডলার সেটা দিয়েই কাজ শুরু করা হবে। একবার রিসার্চ শুরু হয়ে গেলে আরও ফান্ডিংয়ের দরকার। তবে সেগুলি ভারত ও মার্কিন ফান্ডিং এজেন্সি থেকে পাওয়া যাবে। এই ভার্চুয়াল ইনস্টিটিউটের একটা গভর্নিং বডি থাকবে। সেখানে ভারত ও মার্কিন উভয় দেশের প্রতিনিধিরা থাকবেন। 

আইআইটি ডিরেক্টর অভয় করনদিকর জানিয়েছেন, এটা ভারত ও মার্কিন উভয় দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মধ্যে একটা পারস্পরিক মেলবন্ধনের চেষ্টা করবে। 

সেই সঙ্গেই নিউ ইয়র্ক বিশ্ববিদ্যালয়-ট্যান্ডন ও আইআইটি কানপুর অ্যাডভান্সড রিসার্চ সেন্টারের মধ্য়ে মেলবন্ধন, নিউ ইয়র্কের বাফেলোর স্টেট ইউনিভার্সিটির সঙ্গে দিল্লি আইআইটি, কানপুর, যোধপুর, বেনারস হিন্দু ইউনিভার্সিটির মেলবন্ধনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। 

ঘরে বাইরে খবর

Latest News

কোপা চ্যাম্পিয়ন হয়ে FIFA Rankings-এ শীর্ষস্থান মজবুত হল মেসিদের, ১২৪-এ থাকল ভারত Paris Olympics 2024: অফিসিয়ালি খুলে গেল প্যারিস অলিম্পিক্সের গেমস ভিলেজ ENG vs WI: মাত্র ২৬ বলে ৫০, টেস্টের ইতিহাসে দ্রুততম দলীয় হাফসেঞ্চুরি ইংল্যান্ডের T20-র মতো শুরু, ODI-এর ঢংয়ে শেষ, নটিংহ্যাম টেস্টের ১ম দিনেই ৪০০ টপকাল ইংল্যান্ড মার্কিন প্রেসিডেন্ট ভোট, আসরে হাজির ওবামা, বাইডেনের উপর কি আর ভরসা রাখা সম্ভব? বৌদি সোহিনী শ্বশুরবাড়িতে কতটা খাপ খাইয়ে নিয়েছেন? জানালেন 'ননদিনি' দীপ্সিতা জনতা-পুলিশ খণ্ডযুদ্ধ মালদায়! বিদ্যুৎ বিভ্রাট ঘিরে অবরোধকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র রেকর্ড ৩.২ কোটি ট্রান্সফার ফি কেরালাকে দিয়ে জিকসনকে নিল ইস্টবেঙ্গল- রিপোর্ট ক্যাপ্টেন্সি এল না, চলে গেল ভাইস-অধিনায়ক, ডিভোর্স- হার্দিকের 'ব্ল্যাক থার্সডে' গড়পড়তা খেলে জায়গা পাচ্ছেন প্যায়ারেলালরা, ১০০ করেও বাদ অভিষেক, ক্ষোভ নেটিজেনদের

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.