আস্থা থাকুক 'নমস্তে'-তে। তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাওয়ের সঙ্গে নমস্কার বিনিময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর। ছবি সৌজন্যে টুইটার।
আস্থা থাকুক 'নমস্তে'-তে। তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাওয়ের সঙ্গে নমস্কার বিনিময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর। ছবি সৌজন্যে টুইটার।

করোনাভাইরাস রুখতে নমোর পরামর্শে ‘নমস্তে’ রপ্ত করছে ইজরায়েল!

সাংবাদিক সম্মেলনে তেল আভিভে দেশবাসীকে করমর্দনের অভ্যাস বর্জন করার বার্তা দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ভারতীয়দের অনুকরণে নমস্কারের ভঙ্গি নিজেই করে দেখান ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রুখতে করমর্দনের বদলে নমস্তে অর্থাত্ নমস্কারের মাধ্যমে স্বাগত জানান। শনিবার দেশবাসীকে এই বার্তা দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কিছু দিন আগে একই বার্তা দেশবাসীকে দিয়েছেন ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু।

এ দিন মোদী বলেন, ‘সারা বিশ্ব নমস্কারের অভ্যাস রপ্ত করছে। যদি কোনও কারণে আমরা সেই ঐতিহ্য ভুলে গিয়ে থাকি, তাহলে হাত ধরার চেয়ে প্রাচীন সেই পরম্পরা ফিরিয়ে আনার এখনই ঠিক সময়।’

এ দিন প্রধানমন্ত্রী ভারতীয় জনৌষধি পরিযোজনা কেন্দ্রগুলির সঙ্গে ভিডিয়ো আলোচনার সময় এই মন্তব্য করেন নমো। প্রসঙ্গত, মারণভাইরাসের সংক্রমণ রোধ করতে তিনি ইজরায়েলবাসীকেও নমস্কার রপ্ত করার পরামর্শ দেন।

গত বুধবার এক সাংবাদিক সম্মেলনে তেল আভিভে দেশবাসীকে একই বার্তা দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ভারতীয়দের অনুকরণে নমস্কারের ভঙ্গি নিজেই করে দেখান ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রী।

এ দিন ভাইরাস সংক্রমণ সংক্রান্ত গুজব এড়িয়ে চলার পরামর্শও দেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। তিনি বলেন, ‘এই সব সময়ে গুজবও দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়তে থাকে। কেউ বলেন, এটা খেও না বা ওটা করতে যেও না। কেউ কেউ আবার চারটে নতুন খাদ্যদ্রব্য সম্পর্কে বলেন, এই খাবার খেলে করোনাভাইরাস এড়ানো যাবে। এই সমস্ত গুজবও আমাদের এড়িয়ে যেতে হবে। যা-ই করুন, চিকিত্সকের পরামর্শ মেনে করুন।’

এ দিন গুয়াহাটি, দেরাদুন ও কোয়েমবাত্তুর-সহ সারা দেশের সরকারি ওষুধের দোকানের মালিক এবং কর্মীদের সঙ্গে ভিডিয়ো আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘মনে রাখবেন, পরিবারের অন্যান্য সদস্যরাও এই ভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারেন এবং এই পরিস্থিতিতে তাঁদেরও প্রয়োজনীয় মেডিক্যাল পরীক্ষা জরুরি। পরিবারের সব সদস্যরই মাস্ক, দস্তানা পরা উচিত এবং বাড়ির বাইরে গেলে স্পর্শের বিষয়ে সতর্ক থাকা উচিত।’

উল্লেখ্য, ভারতে এ পর্যন্ত নোভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩১। থাইল্যান্ড ও মালয়েশিয়া থেকে ঘুরে আসা নাগরিকরা সকলেই করোনাভাইরাস পরীক্ষায় পজিটিভ প্রমাণিত হয়েছেন।

বন্ধ করুন