বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > IT Return: নয়া পোর্টালে আয়কর রিটার্নের 'এন্ড টু এন্ড' প্রক্রিয়ায় গলদ রয়েছে এখনও
ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য মিন্ট
ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য মিন্ট

IT Return: নয়া পোর্টালে আয়কর রিটার্নের 'এন্ড টু এন্ড' প্রক্রিয়ায় গলদ রয়েছে এখনও

  • অনেক ক্ষেত্রে ই-ভেরিফিকেশন সম্পন্ন হয়ে গেলেও পোর্টালে তা 'পেন্ডিং' দেখাচ্ছে।

এখনও সমস্যা রয়েছে নয়া আয়কর রিটার্ন পোর্টালে। অভিযোগ উঠেছে যে নয়া পোর্টালে আয়কর রিটার্নের 'এন্ড টু এন্ড' প্রক্রিয়ায় গন্ডগোল হচ্ছে। পাশাপাশি ই-ভেরিফিকেশন করতেও সমস্যা হচ্ছে। অনেক ক্ষেত্রে আবার ই-ভেরিফিকেশন সম্পন্ন হয়ে গেলেও পোর্টালে তা 'পেন্ডিং' দেখাচ্ছে। এই ক্ষেত্রে বারংবার পোর্টালটি চেক করে ই-ভেরিফিকেশন স্টেটাস দেখার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

এই ক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞরা পরামর্শ দিচ্ছেন যাতে ই-ভেরিফিকেশনের ক্ষেত্রে 'পেন্ডিং' দেখায় তাহলে আবার ই-ভেরিফিকেশন করা যেতে পারে। কারণ ই-ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়া আবশ্যক। তবে যদি ই-ভেরিফিকেশনটি ইতিমধ্যেই রেজিস্টার হয়ে গিয়ে থাকে তবে পোর্টাল দ্বিতীয়বার ই-ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়া করার অনুমতি দেবে না করদাতাকে। উল্লেখ্য, আয়কর রিটার্ন জমার ১২০ দিনের মধ্যে ই-ভেরিফিকেশন করা বাধ্যতামূলক। এই আভহে আশা করা হচ্ছে যে দ্রুত পোর্টালের এই সমস্যা মেটানো হবে।

এদিকে কয়েকদিন আগে ফের একবার আয়কর রিটার্ন জমার সময়সীমা বাড়ানো হয়েছে। আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত আয়কর রিটার্ন ফাইল করা যবে বলে জানায় কেন্দ্র। বৃহস্পতিবার সেন্ট্রাল বোর্ড অফ ডিরেক্ট ট্যাক্সেসের তরফে জানানো হয়েছে, করদাতারা সমস্যার সম্মুখীন হওয়ায় এবার চলতি অর্থবর্ষের আয়কর রিটার্ন জমা দেওয়ার সময়সীমা বাড়ানো হচ্ছে। এমনিতে যে সময়সীমা ছিল ৩১ জুলাই। পরে করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে সেই সময়সীমা বাড়িয়ে করা হয়েছিল ৩০ সেপ্টেম্বর। সেই সীমা পার হওয়ার সপ্তাহতিনেক আগেই আয়কর রিটার্ন জমা দেওয়ার জন্য করদাতাদের আরও সময় দেওয়ার পথে হেঁটেছে কেন্দ্র।

 

 

বন্ধ করুন