বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ASI-এর তত্ত্বাবধানে হয়েছে জালিয়ানওয়ালাবাগের সংস্কার, বিতর্কের মাঝে জানাল কেন্দ্র
পুরোনো বনাম নতুন, জালিয়ানওয়ালাবাগ (ছবি সৌজন্যে টুইটার)
পুরোনো বনাম নতুন, জালিয়ানওয়ালাবাগ (ছবি সৌজন্যে টুইটার)

ASI-এর তত্ত্বাবধানে হয়েছে জালিয়ানওয়ালাবাগের সংস্কার, বিতর্কের মাঝে জানাল কেন্দ্র

  • আন্তর্জাতিক মান বজায় রেখেই সংস্কারের কাজ হয়েছে বলে জানানো হয়েছে কেন্দ্রের তরফে।

জালিয়ানওয়ালাবাগ নিয়ে বিতর্ক চরমে উঠেছে। এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রীয় সরকার জানাল যে আর্কেওলজিকাল সার্ভে অফ ইন্ডিয়ার তত্ত্বাবধানেই জালিয়ানওয়ালাবাগ সংস্কার হয়েছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। আন্তর্জাতিক মান বজায় রেখেই সংস্কারের কাজ হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।

কেন্দ্র জানিয়েছে, জালিয়ানওয়ালাবাগের সংস্কারের উদ্দেশ্যে দুটি পৃথক কমিটি গঠন করা হয়েছিল। এই দুই কমিটির একটি ছিল এএসআই-এর তত্ত্বাবধানে। তাতে বিশেষজ্ঞ থেকে বিশিষ্ট ইতিহাসবিদরা ছিলেন। প্রতিটি সংস্কারের প্রস্তাব অনেক খতিয়ে দেখার পর অনুমতি পেয়েছে কমিটির।

পঞ্জাবে জালিয়ানওয়ালা বাগের সংস্কারে না খুশ বহু মানুষ। বিরোধী থেকে শুরু করে ইতাহাসবিদরা এই সংস্কারের বিরোধিতা করে কেনদ্রের বিরুদ্ধে তোপ দেগেছে। তাঁদের মধ্যে অন্যতম হলেন কংগ্রেস সাসদ রাহুল গান্ধী। তাঁর মত, এই সংস্কারের মাধ্যমে শহিদদের স্মৃতির প্রতি অসম্মান জানানো হয়েছে। তবে রাহুলের এই বক্তব্যের সঙ্গে সহমত নন ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী এই নয়া সংস্কারের পক্ষেই মত দিয়য়েছেন।

উল্লেখ্য, জালিয়ানওয়ালাবাগ মেমোরিয়াল ট্রাস্টের প্রধান নরেন্দ্র মোদী নিজে। ট্রাস্টে পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরেন্দ্র সিংহও রয়েছেন। জালিয়ানওয়ালাবাগ-কাণ্ডের শতবর্ষ উজ্জাপনের জন্য স্মারকের সংস্কারের কাজে ২০ কোটি টাকা খরচ হয়। আর্কিওলজিকাল সার্ভে, সংস্কৃতি মন্ত্রকের নজরদারিতে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা এনবিসিসি কাজ করে।

বন্ধ করুন