বাড়ি > ঘরে বাইরে > রূপান্তরকামীদের জন্য বিশেষ সেল চালু কংগ্রেসের
রূপান্তরকামীদের জন্য বিশেষ সেল খোলার অনুষ্ঠান (ছবি সৌজন্য টুইটার @MullappallyR)
রূপান্তরকামীদের জন্য বিশেষ সেল খোলার অনুষ্ঠান (ছবি সৌজন্য টুইটার @MullappallyR)

রূপান্তরকামীদের জন্য বিশেষ সেল চালু কংগ্রেসের

  • কংগ্রেসের দাবি, রাজনৈতিক দলগুলির মধ্যে রূপান্তরকামীদের জন্য সেল খোলার ঘটনা এই প্রথম।

রূপান্তরকামীদের জন্য বিশেষ সেল খুলল কেরালা প্রদেশ কংগ্রেস। তাদের দাবি, রাজনৈতিক দলগুলির মধ্যে রূপান্তরকামীদের জন্য সেল খোলার ঘটনা এই প্রথম। তাতে সায় রয়েছে হাইকম্যান্ডেরও।

তিরুবন্তপুরমে দলের সদর দফতরে সেই অনুষ্ঠান হয়। সোমবার ৫০ জন রূপান্তরকামীর হাতে কংগ্রেসের প্রাথমিক সদস্যপদ তুলে দেন কংগ্রেসের শীর্ষ নেতারা। ছিলেন মহিলা কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক অপ্সরা রেড্ডি। বিশেষ বার্তা পাঠান প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি তথা ওয়াইনাডের সাংসদ রাহুল গান্ধীও।

প্রদেশ কংগ্রেসের সহ-সভাপতি কেপি অনিল কুমার জানান, বিশেষ সেল তৈরির প্রস্তাব রূপান্তরকামীরা দিয়েছিলেন এবং তাঁদের দীর্ঘদিনের দাবির প্রতি কংগ্রেস সম্মান জানানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তিনি বলেন, ‘অনেক ঐতিহাসিক রায় আছে। যা শুধু খাতায়কলমে থেকে যায়। তাঁরা এখনও প্রান্তিক এবং কোনও দলই তাঁদের সমস্যা ও অভিযোগ তুলে ধরে না। আমাদের আশা, তাঁদের সমস্যা দূর করতে সাহায্য করবে এই সম্পর্ক।’

রূপান্তরকামীদের প্রতিনিধি পি রজনী বলেন, ‘আমাদের সম্প্রদায়ের বেশিরভাগ সদস্যকে কমিনিউনিস্ট পার্টির মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়। একটা সময় যাঁরা কংগ্রেসের আদর্শে বিশ্বাস করতেন, তাঁরা সেদিকে (কমিউনিস্ট পার্টি) যেতে বাধ্য হন। বেশ কিছু সময় ধরে আমরা এটা কংগ্রেস নেতাদের বলছিলাম। আমরা বেশ খুশি যে অবশেষে দল আমাদের সুযোগ দিয়েছে।’ তাঁর বিশ্বাস, বিশেষ সেল গঠনের পর রূপান্তরকামীদের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে সুযোগ পাবেন।

উল্লেখ্য, বৈষম্য দূর করতে ২০১৫ সালে ভারতের প্রথম রাজ্য হিসেবে রূপান্তরকামী নীতি প্রণয়ন করেছিল কেরালা। তাঁদের অভিযোগ শোনার জন্য দু'বছর পর রূপান্তরকামী জাস্টিস বোর্ডও গঠন করা হয়েছিল। পাশাপাশি জন্ম এবং মৃত্যুর সার্টিফিকেটে পৃথক কলাম হিসেবে ‘তৃতীয় লিঙ্গ’ চালু করা হয়েছে।

বন্ধ করুন