বাড়ি > ঘরে বাইরে > লাদাখ অচলাবস্থা- ফের সামরিক স্তরে 'ইতিবাচক' বৈঠক ভারত-চিনের মধ্যে
লাদাখ (ফাইল ছবি) (AP)
লাদাখ (ফাইল ছবি) (AP)

লাদাখ অচলাবস্থা- ফের সামরিক স্তরে 'ইতিবাচক' বৈঠক ভারত-চিনের মধ্যে

কিছুটা হলেও পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে পূর্ব লাদাখে, যেখানে প্রায় এক মাস ধরে অচলাবস্থা চলছে ভারত ও চিনের মধ্যে। 

গত সপ্তাহের শনিবারের পর ফের সামরিক স্তরে লাদাখ অচলাবস্থা নিয়ে বৈঠক করল ভারত-চিন। এর মধ্যে বরফ কিছুটা কমেছে, গালওয়ান উপত্যকায় কিছুটা সেনা পিছিয়েছে চিন। সেনার সংখ্যা কমিয়েছে ভারতও। এদিন দুই স্টার জেনারেলদের মধ্যে আলোচনা হয় গালওয়ানের প্যাট্রলিং পয়েন্ট ১৪-র কাছে। প্রায় পাঁচ সপ্তাহ ধরে পূর্ব লাদাখে অচলাবস্থা চলছে ভারত ও চিনের মধ্যে। 

দুই মেজর জেনারেল পদস্থানীয় অফিসারের নেতৃত্বে বুধবারের আলোচনা হয়। ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেন মেজর জেনারেল অভিজিত বাপট, যিনি কারুর তৃতীয় ইনফ্যান্ট্রি ডিভিশনের কম্যান্ডার। সূত্রের খবর, স্পষ্ট ও ইতিবাচক আলোচনা হয়েছে। তবে সমস্যার জট এতে কিছুটা কমেছে কিনা, তা এখনও জানা যায়নি। 

এই নিয়ে দুই স্টার জেনারেলদের মধ্যে চতুর্থ বার আলোচনা হল। গালওয়ান উপত্যকার যে তিন জায়গায় সমস্যা ছিল, সেখানে সেনা সরাতে শুরু করেছে চিন। এখন যাবতীয় নজর প্যাংগং লেকের পরিস্থতি স্বাভাবিক করার ওপর। প্রসঙ্গত গত মাসের ৫-৬ তারিখ এই লেকেই মারপিট করে ভারতীয় ও চিনা সেনারা, যেখান থেকে পুরো সমস্যাটি জনসমক্ষে আসে। 

আগামী কয়েকদিনে আরও দফায় দফায় আলোচনা হওয়ার কথা আছে পরিস্থিতি স্বাভাবিক করার জন্য। চিনের তরফ থেকে বুধবার বলা হয়েছে এখনও পর্যন্ত আলোচনা ইতিবাচক ও অস্থিরতা কমানোর জন্য দুই পক্ষই আগ্রহী। 

সীমান্তের ওপারে যেভাবে চিন লোকবল ও অস্ত্রশস্ত্র বাড়াচ্ছে, তাতে চিন্তিত ভারত। প্রায় আট হাজার সেনা, ট্যাঙ্ক, আর্টিলারি বন্দুক, ফাইটার বম্বার, রকেট ফোর্স, এয়ার ডিফেন্স রাডার জড়ো করেছে চিন। ভারত চায় যে এই সব সামরিক সরঞ্জাম পুরনো জায়গাতে ফিরে যাক। তাহলেই পরিস্থিতি সীমান্তে ফের স্বাভাবিক হতে পারবে বলে আশা করবে বলে নয়াদিল্লি মনে করে। 

বন্ধ করুন