বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বাসি খাবার না ফেলে বানিয়ে ফেলুন এই মুখরোচক পদ, রইল কিছু টিপস
বেঁচে যাওয়া ডাল আটায় মেখে পরোটা বানাতে পারেন।
বেঁচে যাওয়া ডাল আটায় মেখে পরোটা বানাতে পারেন।

বাসি খাবার না ফেলে বানিয়ে ফেলুন এই মুখরোচক পদ, রইল কিছু টিপস

  • বেঁচে যাওয়া গাজরের হালুয়াকে আটায় পুর হিসেবে ভরে মিষ্টি পরোটা বানাতে পারেন।

আমরা প্রায়ই বেঁচে যাওয়া ভাত, রুটি, ডাল বা তরকারি হয় বাসি খাই, নাহলে ফেলে দিই। কিন্তু এখানে এমন কয়েকটি টিপস দেওয়া রইল যার সাহায্যে বাড়তি খাবারকেও ঝটপট আর একটি নতুন পদে পরিবর্তিত করে উপাদেয় করে তুলতে পারেন।

১. বেঁচে যাওয়া ডালকে অল্প আঁচে রেখে, তার জল শুকিয়ে নিয়ে। এবার এতে আটা, গরম তেল, কাঁচালঙ্কা, ধনেপাতা দিয়ে মেখে নিন। তারপর পরোটা বা লুচির মতো করে বেলে সেঁকে বা ভেজে নিন।

২. বাঁসি রুটি দিয়ে বৈদা রুটি বানাতে পারেন। একে এগরোলও বলতে পারেন। একটি প্যানে অর্ধেক ডিমের অমলেট বানিয়ে নিন। এর ওপর রুটি রেখে ৩০ সেকেন্ড পর্যন্ত ছেড়ে দিন। তার পর রুটিটির অপর পিঠে বাকি অর্ধেক ডিম দিয়ে ভালো ভাবে সেঁকে নিন।

৩. কালো সরষে, শুকনো লাল লঙ্কা ও কারিপাতার ফোড়ন দিয়ে বেঁচে যাওয়া ইডলিকে নতুন ভাবে পরিবেশন করতে পারেন। নুন, হলুদ ও ধনেপাতা দিতে ভুলবেন না যেন।

৪. আবার বাঁসি ইডলি দিয়ে দই ইডলিও বানিয়ে পরিবেশন করতে পারেন। এর জন্য দইয়ে নুন, চিনি মিশিয়ে ফেটিয়ে নিন। কাজু, কাঁচা লঙ্কা ও নারকেল বেটে দইয়ে মিশিয়ে দিন। এর পর কড়াইয়ে তেল গরম করে কালো সরষে, হিং, কালো বিউলি ডাল ও লাল লঙ্কার ফোড়ন দিন। এই ফোড়ন দইয়ের ওপর ছেড়ে টুকরো করে কাটা ইডলি দইয়ে মিশিয়ে আধ ঘণ্টা ফ্রিজে রেখে দিন। ঠান্ডা ঠান্ডা পরিবেশন করুন।

৫. বেঁচে যাওয়া ভাতে সুজি, নুন, টক দই ও গরম জল মিশিয়ে একটি পেস্ট বানিয়ে নিন। এটি দিয়ে ইডলি বানিয়ে ফেলতে পারেন।

৬. মিক্স ভেজিটেবল বেঁচে গেলে এতে ২-৩ টে সেদ্ধ আলু, আদা, কাঁচালঙ্কা, ধনেপাতা কুচি মিশিয়ে ভেজিটেবল কাটলেট বানিয়ে পরিবেশন করতে পারেন।

৭. বেঁচে যাওয়া ভাত দিয়ে আবার রাইস পুডিংও বানাতে পারেন। এরজন্য এক কাপ চালে ৩টি ডিম, আড়াই কাপ দুধ, ৩/৪ কাপ চিনি, সামান্য নুন, ভ্যানিলা এসেন্স, ছোট এলাচ গুঁড়ো, কিসমিস দিয়ে বেক করে নিন।

৮. এমনকী ভাতের পকোড়া বা চপও বানিয়ে ফেলতে পারেন। এর জন্য ভাতে সাদা তিল, গোটা ধনে, জিরে, চিনি, লাল লঙ্কা গুঁড়ো, হলুদ গুড়ো, বেসন ও নুন মিশিয়ে ডুবো তেলে ভেজে নিন।

৯. রাতের বেঁচে যাওয়া তরকারিতে আটা মিশিয়ে, মেখে ভেজিটেবল পরোটা বানাতে পারেন।

১০. সেদ্ধ নুডলস বেঁচে থাকলে, সেটিকে জল দিয়ে আর এক বার ধুয়ে নিন। এটিকে সুপে দিয়ে খাওয়া যেতে পারে। এমনকী সেটা দিয়ে নুডলস স্প্রিং রোল বা চাইনিজ সিঙাড়াও বানানো যেতে পারে। আবার নানা সবজি মিশিয়ে নুডলস পকোড়াও বানাতে পারেন।

১১. বাঁসি রুটির টুকরো করে তা গরম তেলে ভেজে, এতে উপর দিয়ে দই ও সামান্য গরম মশলা ছিটিয়ে পরিবেশন করুন। 

১২. খোয়ার অনেকগুলো মিষ্টি বেঁচে গেলে সেটিকে ম্যাশ করে অল্প ঘিয়ে ভেজে নিন। এবার ময়দা বা আটায় ভরে মিষ্টি শাহী লুচি ভেজে নিন।

১৩. বেঁচে যাওয়া চানা মশলার গ্রেভিতে সেদ্ধ পাস্তা, নুন ও কাঁচালঙ্কা দিয়ে স্পাইসি ছোলার পাস্তা তৈরি করতে পারেন।

১৪. বেঁচে যাওয়া গাজরের হালুয়াকে আটায় পুর হিসেবে ভরে মিষ্টি পরোটা বানাতে পারেন।

বন্ধ করুন