বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বিহারে মহাগঠবন্ধনকে অক্সিজেন দিল বামপন্থীরা
চলছে গণনা
চলছে গণনা

বিহারে মহাগঠবন্ধনকে অক্সিজেন দিল বামপন্থীরা

  • সরকার গড়ার পথে অনেকটাই এগিয়ে রয়েছে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট। কিন্তু এখানে প্রাসঙ্গিক হয়ে দেখা দিল বামেরা।

সরকার গড়ার পথে কিছুটা এগিয়ে রয়েছে বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোট। কিন্তু এখানে প্রাসঙ্গিক হয়ে দেখা দিল বামেরা। যা অনেক ভোট বিশেষজ্ঞ ভাবতেও পারেনি। হ্যাঁ, ঘটনাস্থল বিহার। যেখানে পাটনার মসনদ দখল কে করবে তার গণনা চলছে।

এবারের নির্বাচনে আরজেডি’‌র নেতৃত্বাধীন মহাজোটের অংশ হয়েছে তিন বাম দল। কিছুক্ষেত্রে আরজেডি এবং অনেকাংশে কংগ্রেস হতাশ হলেও বিহারে মাটিতে লাল পতাকা কিন্তু উড়ল। সর্বত্র নয়, কোথাও কোথাও। জানা গিয়েছে, রাজ্যে এবার মোট ২৯টি আসনে প্রার্থী দিয়েছিল বামেরা। ১৪টি আসনে ইতিমধ্যেই জিতেছে বামপন্থীরা। এগিয়ে আরো দুটি আসনে। 

এটাই কী অক্সিজেন পাওয়ার জন্য যথেষ্ট নয়?‌ অনেকেই বলছেন, গোটা দেশে যখন অপ্রাসঙ্গিক হয়ে পড়ছে বামেরা, তখন বিহার বিধানসভা ভোটে এই ট্রেন্ড একটু হলেও মুখে হাসি ফোটায়। 

এখন প্রশ্ন, কোথায় কোথায় এগিয়ে বামেরা?‌ গণনার সূত্রে খবর, বিহারের আগিয়াওন, আরা, আরওয়াল, বলরামপুর, বিভূতিপুর, দারাউলি, দারাউন্ধা, ঘোষি, কারাকাট, মাধি, মতিহারি, পালিগঞ্জ, তারারি, ওয়ারিশনগর, জিরাদেই, বাছাওয়ারা এবং বাখরি আসনে এগিয়ে রয়েছেন বাম প্রার্থীরা। যা নির্বাচনী স্ট্র‌্যাটেজিস্টরা ভাবতে পারেননি।

উল্লেখ্য, ২০১০ সালে সিপিএম মাত্র একটি আসন জিততে পেরেছিল। ২০১৫ সালে সিপিআই(এমএল) জিতেছিল তিনটে আসনে। এবার ফলাফলের প্রবণতা বেশ অন্যরকম। সিপিআই(এমএল) জিতেছে নয়টি আসনে, এগিয়ে আরো দুটিতে। সিপিআই দুটি ও সিপিআইএম তিনটি আসনে জিতেছে। 

 

বন্ধ করুন