বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > LIC Share Price Updates: ‘ঝিমিয়ে’ শেয়ার বাজারে অভিষেক হতে পারে LIC-র, বিনিয়োগকারীরা কী করবেন?
শেয়ার বাজারে ঝিমিয়ে অভিষেক হতে চলেছে জীবন বিমা নিগমের (এলআইসি)। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে ব্লুমবার্গ)

LIC Share Price Updates: ‘ঝিমিয়ে’ শেয়ার বাজারে অভিষেক হতে পারে LIC-র, বিনিয়োগকারীরা কী করবেন?

  • LIC Share Price Updates: গত ৪ মে বাজারে এসেছিল এলআইসি আইপিও (সেদিন রেপো রেট বৃদ্ধির ঘোষণার পর দুর্বল হয়ে পড়ে শেয়ার বাজার)। আবেদনপত্র জমা দেওয়ার প্রক্রিয়া চলেছিল ৯ মে পর্যন্ত। সেইসময় প্রতিটি শেয়ারের দাম ৯০২ টাকা থেকে ৯৪৯ টাকার স্তরে ধার্য করা হয়েছিল। তবে এখন গ্রে মার্কেটে দুর্বল আছে।

শেয়ার বাজারে ঝিমিয়ে অভিষেক হতে চলেছে জীবন বিমা নিগমের (এলআইসি)। আপাতত বাজারের যা পরিস্থিতি, তাতে তেমনটাই মনে করছেন বাজারের বিশেষজ্ঞরা। যে সংস্থা আগামিকাল (১৭ মে) ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জ (এনএসই) এবং বম্বে স্টক এক্সচেঞ্জে (বিএসই) নথিভুক্ত হতে চলেছে।

বিষয়টি নিয়ে ‘হিন্দুস্তান টাইমস’ গ্রুপের 'লাইভ মিন্ট'-এ স্বস্তিকা ইনভেস্টমার্টের সিনিয়র অ্যানালিস্টের আয়ুষ আগরওয়াল জানিয়েছেন, গ্রে মার্কেটের সাম্প্রতিক যে প্রবণতা, তাতে শনিবার (১৬ মে) এলআইসির নথিভুক্ত না থাকা প্রতিটি শেয়ারের দাম ছিল ৯৩৬ টাকা। যা জীবন বিমা নিগমের ইনিশিয়াল পাবলিক অফারিংয়ের (আইপিও) সর্বোচ্চ দামের স্তরের থেকে ১৩ টাকা সস্তায় পাওয়া যাচ্ছিল। তবে শেয়ার বাজারে অভিষেকের পর পতনে কিছুটা লাগাম পড়তে পারে।

আরও পড়ুন: LIC IPO Grey Market Premium: কিছুটা উন্নতি হলেও ‘গ্রে মার্কেটে’ থাকল দুর্বলতা, সস্তায় অভিষেক শেয়ার?

গত ৪ মে বাজারে এসেছিল এলআইসি আইপিও (সেদিন রেপো রেট বৃদ্ধির ঘোষণার পর দুর্বল হয়ে পড়ে শেয়ার বাজার)। আবেদনপত্র জমা দেওয়ার প্রক্রিয়া চলেছিল ৯ মে পর্যন্ত। সেইসময় প্রতিটি শেয়ারের দাম ৯০২ টাকা থেকে ৯৪৯ টাকার স্তরে ধার্য করা হয়েছিল। কিছুটা সস্তায় পেয়েছিলেন পলিসিহোল্ডার এবং কর্মচারীরা। সেইসময় বাজার দুর্বল থাকলেও প্রায় তিনগুণ বেশি ‘সাবস্ক্রাইব’ হয়েছিল। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, বাজারে মোট ১৬.২ কোটি শেয়ার ছাড়া হয়েছিল। সেজন্য ৪৭.৮৩ কোটি আবেদন জমা পড়েছে। আবেদনপত্র ঝাড়াই-বাছাইয়ের পর আইপিওয়ের শেয়ার বণ্টন করা হয়েছে।  

আইপিও পর্যায়ের সেই সাফল্যের জন্য এলআইসির উপর ভরসা রাখছেন বিশেষজ্ঞদের একাংশ। মেহতা ইক্যুইটিজের ভাইস প্রেসিডেন্ট (রিসার্চ) প্রশান্ত তাপসে জানান, রিটেল পলিসিহোল্ডার, রিটেল ইনভেস্টর এবং কর্মচারীদের চাহিদার ভিত্তিতে প্রত্যাশাও ছাপিয়ে গিয়েছে এলআইসির আইপিও। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের জেরে বাজারে যে প্রভাব পড়েছিল, তার জেরে 'গ্রে মার্কেট প্রিমিয়ামে' নেতিবাচক প্রবণতা চলছে। সেইসঙ্গে আরও অন্যান্য বিষয় বিবেচনা আশা করা হচ্ছে যে অফার প্রাইজের পাঁচ শতাংশ কম বা বেশি থাকতে পারে।

আরও পড়ুন: LIC IPO: শেয়ার বরাদ্দ না হলে কবে মিলবে রিফান্ড, সফল আবেদনকারীরা কবে পাবেন শেয়ার?

বিনিয়োগকারীদের পরামর্শ

স্বস্তিকা ইনভেস্টমার্টের পরামর্শ, যাঁরা শেয়ার পেয়েছেন, তাঁরা দীর্ঘকালীন সময়ের জন্য রেখে দিতে পারেন। কম দামে শেয়ার নথিভুক্ত হলেও সেটা করতে পারেন লগ্নিকারীরা। একইসুরে বিনিয়োগকারীদের উদ্বিগ্ন না হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন মেহতা ইক্যুইটিজের ভাইস প্রেসিডেন্ট (রিসার্চ) তাপস। মাঝারি এবং দীর্ঘকালীন সময়ের জন্য শেয়ার রেখে দিতে পারন। যে দুর্বলতা আছে এখন, সেটাকেই সুযোগ হিসেবে দেখার পরামর্শ দিয়েছেন তিনি।

(বিশেষ দ্রষ্টব্য: বিশেষজ্ঞদের মত ব্যক্তিগত। তা হিন্দুস্তান টাইমস বাংলার মত নয়।)

বন্ধ করুন