বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Lucknow Mall ‘Namaz’ Controversy: লখনউয়ের 'মলের মধ্যে নমাজ' ভিডিয়ো ভাইরাল! প্রার্থনার অনুমতি নেই, জানাল কর্তৃপক্ষ
লখনউয়ের 'মলের মধ্যে নমাজ' পড়া হচ্ছে বলে দাবি করে একটি ভিডিয়ো ভাইরাল হয় (বাঁদিকে, সৌজন্যে ভাইরাল ভিডিয়ো), মলের মধ্যে প্রার্থনা নিয়ে সতর্কতা কর্তৃপক্ষের। (ডানদিকে, সৌজন্যে পিটিআই)

Lucknow Mall ‘Namaz’ Controversy: লখনউয়ের 'মলের মধ্যে নমাজ' ভিডিয়ো ভাইরাল! প্রার্থনার অনুমতি নেই, জানাল কর্তৃপক্ষ

  • Lucknow Mall ‘Namaz’ Controversy: মল কর্তৃপক্ষের দাবি, সকল ধর্মকে শ্রদ্ধা করা হয়। মলের ভিতরে কোনও ধর্মীয় কাজ বা প্রার্থনার কোনও অনুমতি নেই।

ভাইরাল ভিডিয়ো নিয়ে মুখ খুলল লখনউয়ের লুলু মল কর্তৃপক্ষ। যে ভাইরাল ভিডিয়োয় (সত্যতা যাচাই করেনি হিন্দুস্তান টাইমস বাংলা) কয়েকজনকে নমাজ পড়তে দেখা গিয়েছিল। ওই মল কর্তৃপক্ষের দাবি, সকল ধর্মকে শ্রদ্ধা করা হয়। মলের ভিতরে কোনও ধর্মীয় কাজ বা প্রার্থনার কোনও অনুমতি নেই। 

ভিডিয়োটি (সত্যতা যাচাই করেনি হিন্দুস্তান টাইমস বাংলা) ভাইরাল হওয়ার পর মলের বাইরে বিক্ষোভ দেখায় অখিল ভারতীয় হিন্দু মহাসভা। সংবাদসংস্থা পিটিআইয়ের প্রতিবেদন অনুযায়ী, নিজেকে অখিল ভারতীয় হিন্দু মহাসভার জাতীয় মুখপাত্র হিসেবে দাবি করে শিশির চতুর্বেদী নামে এক ব্যক্তি বলেছেন যে 'একটি নির্দিষ্ট সম্প্রদায়ের মানুষকে মলের মধ্যে নমাজ পড়তে দেওয়া হচ্ছে। হিন্দু এবং অন্য সম্প্রদায়ের মানুষকেও প্রার্থনা করতে দেওয়া উচিত মল কর্তৃপক্ষের।' তাঁর অভিযোগ, বৃহস্পতিবার তাঁদের মলের ভিতরে ঢুকতে দেওয়া হয়নি।

আরও পড়ুন: কফি উইথ করণে ছড়িয়ে লাট করেছে আলিয়া, তা নকল করল এই মিমিক আর্টিস্ট, Viral Video

ইতিমধ্যে হিন্দু মহাসভার তরফে মল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পুলিশে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। হিন্দু মহাসভার দাবি, মলের ৭০ শতাংশ কর্মী এবং সেই কাজটা করে মল কর্তপক্ষ 'লাভ জিহাদ' করছে। পালটা মল কর্তৃপক্ষের তরফেও পুলিশে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে মল কর্তৃপক্ষ। সেইসঙ্গে মলের জেনারেল ম্যানেজার সমীর বর্মা জানিয়েছেন, 'এরকম ঘটনা'-র উপর নজর রাখতে মলের কর্মী এবং নিরাপত্তারক্ষীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে।

বন্ধ করুন