বাড়ি > ঘরে বাইরে > একগাল মাছি মুখ্যমন্ত্রীর, পরিযায়ী ফেরাতে সোনু সুদের শরণাপন্ন দলের বিধায়ক
মুম্বইতে আটকে পড়া শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে বলিউড তারকা সোনু সুদের দ্বারস্থ বিজেপি বিধায়ক।
মুম্বইতে আটকে পড়া শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে বলিউড তারকা সোনু সুদের দ্বারস্থ বিজেপি বিধায়ক।

একগাল মাছি মুখ্যমন্ত্রীর, পরিযায়ী ফেরাতে সোনু সুদের শরণাপন্ন দলের বিধায়ক

  • ৫.৫ লাখ পরিযায়ীকে ফিরিয়ে আনার সাফল্য দাবি করছেন মুখ্যমন্ত্রী, অথচ তাঁরই দলের বিধায়ক শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে হলিউড তারকা সোনু সুদের দ্বারস্থ হলেন।

সরকারি উদ্যোগে ৫.৫ লাখ পরিযায়ী শ্রমিককে ফিরিয়ে আনার সাফল্য দাবি করছেন মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান, অথচ তাঁরই দলের বিধায়ক মুম্বইতে আটকে পড়া শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে বলিউড তারকা সোনু সুদের দ্বারস্থ। এই নিয়ে মধ্যপ্রদেশের শাসকদল বিজেপি-কে পালটা খোঁচা মারল কংগ্রেস।

সম্প্রতি টুইটারে সোনু সুদকে ট্যাগ করে এক বার্তায় মধ্য প্রদেশের প্রাক্তন মন্ত্রী বর্তমানে বিজেপি বিধায়ক রাজেন্দ্র শুক্লা আবেদন করেন, ‘সোনু সুদ-জি, রেওয়া ও সাতনার বাসিন্দা কয়েক জন শ্রমিক বেশ কিছু দিন মুম্বইতে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছেন। দয়া করে তাঁদের বাড়ি ফিরতে সাহায্য করুন।’

বিধায়কের টুইটের জবাবে সোনু লেখেন, ‘স্যার, আর কোনও পরিযায়ী ভাই কোথাও বিচ্ছিন্ন হয়ে থাকবেন না। আগামিকালই আপনার পরিযায়ী ভাইদের ঘরে ফেরত পাঠানো হবে। এবার মধ্য প্রদেশ গেলে দয়া করে আমায় পোহা খাওয়াবেন।’

বিজেপি বিধায়কের টুইটের প্রসঙ্গে রাজ্যের প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি অরুণ যাদব পালটা টুইট করেন, ‘রাজেন্দ্র শুক্লার টুইট মধ্য প্রদেশের আসল তিক্ত চিত্র ফুটিয়ে তুলেছে। শিবরাজ জি দেখুন, আপনার প্রাক্তন মন্ত্রী তথা রেওয়ার বিজেপি বিধায়কের সরকারের প্রতি বিন্দুমাত্র আস্থা নেই। এই কারণে মুম্বইতে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া রাজ্যের শ্রমিকদের ফেরাতচে তাঁকে সোনু সুদের শরণাপন্ন হতে হয়েছে।’

বিজেপির বিরুদ্ধে এই আক্রমণে শামিল হয়েছেন দিল্লির কংগ্রেস নেতা অলকা লাম্বাও। টুইটারে তিনি লেখেন, ‘নিজের চোখকে বিশ্বাস করতে পারছি না! এক বিধায়ক, যিনি আবার আগে রাজ্যের মন্ত্রী ছিলেন, মধ্য প্রদেশে ও কেন্দ্রে তাঁরই দল ক্ষমতাসীন। মহারাষ্ট্রেও প্রচুর বিজেপি বিধায়ক রয়েছেন। তাঁদের সবাইকে ছেড়ে মুম্বই থেকে পরিযায়ী শ্রমিকদের রাজ্যে ফেরাতে তিনি কি না সোনু সুদের কাছে সাহায্য চাইলেন! ওঁর অবিলম্বে পদত্যাগ করাই উচিত।’

বেফাঁস মন্তব্য বিরোধীদের হাতে অস্ত্র তুলে দিয়েছে বুঝতে পেরে এর পরে ড্যামেজ কন্ট্রোলে নামেন রাজেন্দ্র শুক্লা। ফের টুইট করে তিনি সাফাই দেন, ‘আমার অকর্মণ্য কংগ্রেসি বন্ধুদের বলছি, গত ৩ সপ্তাহে মোট ৪৫টি শ্রমিক স্পেশ্যাল ট্রেনে মধ্য প্রদেশে ৪২ হাজারের বেশি পরিযায়ী শ্রমিক ঘরে ফিরেছেন। এ ছাড়া বিন্ধ্য অঞ্চলে ৭৫ হাজারের বেশি পরিযায়ী ফিরেছেন ১,৫০০ বাসে। কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের সহযোগিতা ও সমন্বয়েই তা সম্ভব হয়েছে।’

 মধ্য প্রদেশের বিজেপি নেতা হিতেশ বাজপেয়ী আক্ষেপ করেছেন, পরিযায়ী শ্রমিকদের যন্ত্রণা নিয়েও রাজনীতি করছে কংগ্রেস। উত্তর প্রদেশে পরিযায়ী শ্রমিকদের সাহায্য করার নামে কংগ্রেসের নেতাদের ব্যর্থতার কথাও তিনি মনে করিয়ে দিয়েছেন। পরিশেষে, টিকা-টিপ্পনি ছেড়ে শ্রমিকদের প্রতি মানবিকতা প্রদর্শনের জন্য কংগ্রেসকে পরামর্শ দিয়েছেন বাজপেয়ী। 

বন্ধ করুন